বাসস
  ১৬ জুন ২০২৪, ১৩:৩১
আপডেট  : ১৬ জুন ২০২৪, ১৬:১৯

বরিশালে ঈদুল আজহাকে কেন্দ্র করে চাহিদা বেড়েছে হোগলা ও খাটিয়ার

বরিশাল, ১৬ জুন ২০২৪ (বাসস) : বরিশালে ঈদুল আজহাকে কেন্দ্র করে চাহিদা বেড়েছে পাতার হোগলা ও মাংস কাটার খাটিয়ার। নগরীসহ জেলার বিভিন্ন উপজেলার বাজারগুলোতে বিক্রি হচ্ছে এসব হোগলা ও তেঁতুল গাছের গুঁড়ির খাটিয়া। ব্যস্ত সময় পার করছেন মৌসুমী ব্যবসায়ীরা।
সরোজমিনে একাধিক বাজার ঘুরে দেখা গেছে, ক্ষুদ্র ও মাঝাড়ি ব্যবসায়ীরা হোগলা পাতার তৈরী হোগলা ও তেঁতুল গাছের গুঁড়ির খাটিয়ার পসরা সাজিয়ে বসেছে বিভিন্ন বাজার এবং নগরীর মোড়ে মোড়ে। তাদের কাছ থেকে ক্রেতারা দাম-দর করে এসব কিনে নিয়ে যাচ্ছেন। নগরীর সাগরদী বাজার, চকেরপুল হাটখোলা, বাকঁলার মোড় ও চৌমাথা বাজার এলাকায় হোগলা পাতার সমন্বয়ে তৈরি হোগলা (চাটাই) তেঁতুল গাছের গুঁড়ির খাটিয়া নিয়ে বসেছেন একাধিক ব্যবসায়ী।
এ বিষয়ে নগরীর বাকঁলার মোড় হোগলা ও খাটিয়া ব্যবসায়ী সুখরঞ্জন মন্ডল ও সাইদুল ইসলাম জানান, কোরবানীর ঈদের কথা মাথায় রেখে প্রতি বছরই এগুলো বিক্রি করেন তারা। কোরবানির পশুর মাংস কাটতে গাছের খাটিয়া ও হোগলা বেশ জনপ্রিয়। তাই আসন্ন ঈদুল আজহাকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন কাঠের স্ব-মিল থেকে খাটিয়া ও বিভিন্ন গ্রাম থেকে পাইকারী হোগলা এনে বিক্রি করছেন তারা।  
সুখরঞ্জন ও সাইদুল আরো জানান, চার হাত প্রস্থ ও পাঁচ হাত লম্বা প্রতিটি হোগলার দাম সাড়ে ৩’শ থেকে ৫’শ টাকা। তবে ঈদের সময় যতো ঘনিয়ে আসছে ততো চাহিদা বাড়ছে হোগলা ও খাটিয়ার। আর চাহিদা অনুযায়ী উৎপাদন না থাকলে আরো দাম বেড়ে যেতে পারে। অপরদিকে কাঠের খাটিয়া বিক্রি হচ্ছে ২শ’ থেকে ৪শ’ টাকায়।
এ প্রসঙ্গে হোগলা ও খাটিয়া ক্রয় করতে আসা এডভোকেট জাকির মোল্লা ও মুদি ব্যবসায়ী আমির হোসেন জানান, তুলনামূলক গত বছরের চেয়ে এ বছর হোগলা ও খাটিয়ার দাম বেশি। তারপরও কোরবানীর ঈদে হোগলা ও খাটিয়া যখন লাগবেই তখন একটু আগেভাগেই কিনতে চলে এলাম। তাছাড়া, কোরবানীর ঈদের সাথে এসব উপকরনের পারস্পারিক সর্ম্পক রয়েছে।

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়