BSS-BNhrch_cat_news-24-5
বাসস
  ২১ মে ২০২২, ১৪:৫২

শেষ দিনে লিভারপুলের স্বপ্ন ভঙ্গ করে শিরোপা ধরে রাখার মিশনে ম্যানচেস্টার সিটি

লন্ডন, ২১ মে ২০২২ (বাসস) :  প্রিমিয়ার লিগের ২০২১-২২ মৌসুমের শেষ দিনে শিরোপা জয়ের মিশনে আগামীকাল নিজ নিজ মাঠে নামছে ম্যানচেস্টার সিটি ও লিভারপুল। এ্যাস্টন ভিলার বিপক্ষে ইতিহাদ স্টেডিয়ামে অন্তত এক পয়েন্ট অর্জন করতে পারলেই পেপ গার্দিওলার দলের পাঁচ বছরে চতুর্থ লিগ শিরোপা নিশ্চিত হবে। অন্যদিকে ঐতিহাসিক কোয়াড্রাপল শিরোপা জয়ের লক্ষ্য নিয়ে উল্ফসকে আতিথ্য দিবে লিভারপুল। 
সিটি বস গার্দিওলা এ সম্পর্কে বলেছেন, ‘এই ধরনের একটি ম্যাচের আগে নিজের আবেগকে ধরে রাখা অনেকটাই অসম্ভব। খেলোয়াড়রাও মানুষ, কিন্তু একইসাথে বুঝতে হবে এটাই ফুটবল, এখানে অনেকেই মনে করে সবকিছু শেষ হয়ে গেছে। কিন্তু আসলে  বিষয়টি তা নয়।’
চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিফাইনালের দ্বিতীয় লেগে ম্যাচ শেষের দুই মিনিট আগেও সিটিজেনরা জানতো তারা ২-০ গোলে এগিয়ে থেকে ম্যাচটি জিততে চলেছে। কিন্তু রিয়াল মাদ্রিদ তা ভুল প্রমান করে ম্যাচটি জিতে নেয়। 
এদিকে লিভারপুলের সামনে একদিকে লিগ শিরোপা অন্যদিকে ইউরোপ সেরা হবার স্বপ্ন। আগামী সপ্তাহে প্যারিসের ফাইনালে রেডদের প্রতিপক্ষ রিয়াল মাদ্রিদ। এক বছরে চারটি বড় শিরোপা জয়ের দ্বারপ্রান্তে এখন লিভারপুল। জার্গেন ক্লপের দল ইতোমধ্যেই লিগ কাপ ও এফএ কাপের শিরোপা ঘরে তুলেছে। 
লিভারপুল বস ক্লপ বলেছেন, ‘মৌসুমের শুরুতে যদি এমন হতো কেউ এসে বলছে তোমরা তিনটি কাপ ফাইনালে পৌঁছে গেছ এবং এখন লিগ শিরোপার জন্য মাঠে নামতে হবে। বিষয়টা চিন্তা করাও অসম্ভব। কিন্তু ছেলেরা আজ সেটাই বাস্তবে রূপ দিয়েছে। সমর্থকরাও আমাদের সাথে সবসময়ই ছিল। তাদের জন্যও এটা একটি গর্বের মুহূর্ত। এখন আমাদের শেষ দুটি ম্যাচ উপভোগ করার বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে।’
ইতিহাদ স্টেডিয়ামে প্রতিপক্ষ বেঞ্চে কোচ হিসেবে সাবেক লিভারপুল তারকা স্টিভেন জেরার্ডকে পাচ্ছে সিটি। শিরোপা জয়ের শেষ দিনে এই বিষয়টিও বাড়তি উত্তেজনা ছড়াচ্ছে। এ্যানফিল্ডের ১৭ বছরের ক্যারিয়ারে জেরার্ড কখনো লিগ শিরোপা জয় করতে পারেননি। কিন্তু পুরনো ক্লাবের দায়ভার কিছুটা হলেও ফিরিয়ে দেবার লক্ষ্যে সিটিকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিতেই পারেন। 
সিটি জিততে না পারলে উল্ফসের বিপক্ষে ঘরের মাঠে জয় লিভারপুলকে শিরোপা উপহার দিতে পারে। এ সম্পর্কে জেরার্ড বলেছেন, ‘আমাদের পক্ষে যা কিছু করা সম্ভব আমরা সেটাই করার চেস্টা করবো। আর এটা যদি পরোক্ষভাবে লিভারপুলকে সহযোগিতা করা হয় তবে তো বিষয়টি অবশ্যই আনন্দের। কিন্তু আমার মূল লক্ষ্য হচ্ছে এ্যাস্টন ভিলাকে পয়েন্ট উপহার দেয়া।’
আগামী মৌসুমে সিটি ও লিভারপুলের সাথে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে খেলা নিশ্চিত হয়েছে চেলসির। চতুর্থ স্থানটির জন্য এখনো লড়াইয়ে টিকে রয়েছে টটেনহ্যাম হটস্পার ও আর্সেনাল। ইতোমধ্যেই রেলিগেটেড নরউইচ সিটির বিপক্ষে এক পয়েন্ট পেলেই স্পার্সদের চতুর্থ স্থান নিশ্চিত হবে। এদিক থেকে দেখতে গেলে টটেনহ্যাম সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছে। অন্যদিকে পরপর দুই ম্যাচে হেরে আর্সেনাল ইউরোপীয়ান ফুটবলে ফেরার সুবর্ন সুযোগ হারিয়েছে। ক্যারো রোডে নিজেদের শেষ ম্যাচে এভারটনের বিপক্ষে জয়ের ভিন্ন কিছু নেই। 
ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও ওয়েস্ট হ্যাম আগামী মৌসুম ইউরোপীয়ান ফুটবলে নিজেদের জায়গা নিশ্চিত করেছে। ক্রিস্টাল প্যালেসের বিপক্ষে এ্যাওয়ে ম্যাচটিতে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে ইউনাইটেডের নতুন কোচ এরিক টেন হাগের। এই ম্যাচে যদি ইউনাইটেড জিততে না পারে তবে ব্রাইটনের বিপক্ষে জিতে হ্যামারদের ষষ্ঠ স্থান নিশ্চিত হতে পারে। 
টেবিলের তলানিতে বার্নলি কিংবা লিডসের মধ্যকার যেকোন একটি দল রেলিগেটেড হয়ে যাবে। গোল ব্যবধানে এগিয়ে থেকে লিডসের তুলনায় বার্নলি সুবিধাজনক অবস্থানে আছে। বার্নলি টার্ফ মুরে নিউক্যাসলকে আতিথ্য দিবে। আর ব্রেন্টফোর্ড সফরে যাবে লিডস। 
গত বৃহস্পতিবার নাটকীয় ম্যাচে ক্রিস্টাল প্যালেসকে পরাজিত করে রেলিগেশন এড়িয়েছে এভারটন।
 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
বেটা ভার্সন