বাসস
  ২১ জুন ২০২৪, ১৮:৪৩

সেমির পথে এগিয়ে যেতে চায় অস্ট্রেলিয়া; টিকে থাকার লক্ষ্য আফগানিস্তানের

সেন্ট ভিনসেন্ট, ২১ জুন, ২০২৪ (বাসস) : টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালের পথে এগিয়ে যাবার লক্ষ্য নিয়ে সুপার এইট পর্বে গ্রুপ-১এ নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে আফগানিস্তানের মুখোমুখি হবে অস্ট্রেলিয়া। সেমির আশা বাঁচিয়ে রাখতে অসিদের বিপক্ষে জয়ই প্রধান লক্ষ্য আফগানদের। আগামী ২৩ জুন  রোববার সেন্ট ভিনসেন্টে বাংলাদেশ সময় সকাল ৬টা ৩০ মিনিটে মাঠে নামবে অস্ট্রেলিয়া ও আফগানিস্তান। 
আজ সকালে বাংলাদেশের বিপক্ষে দারুন জয় দিয়ে বিশ^কাপের সুপার এইট পর্ব শুরু করেছে অস্ট্রেলিয়া। বৃষ্টি আইনে ২৮ রানে জয় পায় অসিরা। টস হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে অস্ট্রেলিয়ার বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৪০ রান করে টাইগাররা। অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে এ ম্যাচে হ্যাট্টিক করেছেন পেসার প্যাট কামিন্স। ৪ ওভারে ২৯ রানে ৩ উইকেট নেন তিনি। 
১৪১ রানের টার্গেটে ৬৫ রানে সূচনা পায় অস্ট্রেলিয়া। এরপর ১১ দশমিক ২ ওভারে ২ উইকেটে ১শ রান তুলে জয়ের পথ সহজ করে ফেলে অসিরা। ঐ ওভারের মাঝে বৃষ্টিতে খেলা বন্ধ হলে, শেষ পর্যন্ত বৃষ্টি আইনে জয় পায় অস্ট্রেলিয়া। 
বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচ জয়ের পর বোলারদের পারফরমেন্সের প্রশংসা করেছেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক মিচেল মার্শ। তিনি বলেন, ‘সত্যি অসাধারন বোলিং পারফরমেন্স করেছে বোলাররা। ছেলেরা আজ পুরো ম্যাচেই ভালো খেলেছে। আশা করি, নিজেদের সেরা পারফরমেন্স অব্যাহত রাখবে এবং আফগানিস্তানের বিপক্ষে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারবো আমরা।’
গতরাতে ভারতের কাছে ৪৭ রানের হার দিয়ে সুপার এইট পর্ব শুরু করে আফগানিস্তান। ব্যাটিং ব্যর্থতার কারনে ম্যাচটি জিততে পারেনি আফগানরা। প্রথমে ব্যাট করে ৮ উইকেটে ১৮১ রান করে ভারত। জবাব দিতে নেমে ভারতীয় বোলারদের তোপে ১৩৪ রানে গুটিয়ে যায় আফগানরা। 
ব্যাট হাতে জ¦লে উঠতে পারেনি গ্রুপ পর্বে দারুন পারফরমেন্স করা আফগানিস্তানের ব্যাটাররা। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ২৬ রান করেন আজমতুল্লাহ ওমারজাই। 
ভারতের কাছে হারের জন্য ব্যাটিংয়ে বাজে পারফরমেন্সকে কাঠগড়ায় তুলেছেন আফগাানিস্তানের অধিনায়ক রশিদ খান। তিনি বলেন, ‘প্রথম ম্যাচে আমাদের বোলিং ভালো হয়েছে। কিন্তু ব্যাটারদের কাছ থেকে সেরা পারফরমেন্স আসেনি। জুটি গড়ার জন্য ব্যাটারদের বড় ইনিংস খেলতে হবে। ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের ভুলগুলো দল কাটিয়ে উঠবে বলে আশা করছি। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে জয়ের জন্য ছেলেরা সেরা পারফরমেন্স দিতে মুখিয়ে আছে।’
মাঠের বাইরেও ২০২১ সাল থেকে আফগানিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট বোর্ডের মধ্যে ভিন্ন এক লড়াই চলছে। ২০২১ সালের আগস্টে আফগানিস্তানের ক্ষমতায় দখলে নেয় তালেবানরা। এরপর নারীদের খেলাধুল, মেয়েদের স্কুল ও বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াও বন্ধ করে দেয় তারা। 
নারীদের খেলাধুলা নিষিদ্ধ করায় ২০২১ সালের নভেম্বরে হোবার্টে আফগানিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট স্থগিত করে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ)। 
এরপর ২০২৩ সালের মার্চে আরব আমিরাতে দুই দলের নির্ধারিত ওয়ানডে সিরিজ খেলতেও অস্বীকৃতি জানায় সিএ।  
টেস্ট ও ওয়ানডেতে সিরিজের পর এ বছরের মার্চে আফগানিস্তানের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজও স্থগিত করে সিএ। কারন হিসেবে সিএ জানিয়েছিলো, আফগানিস্তানে তালেবান শাসকগোষ্ঠী নারীর অধিকার রক্ষা করছে না। নারী ও কন্যা শিশুদের আর্থসামাজিক অবস্থার অবনতি হচ্ছে তালেবান-শাসিত আফগানিস্তানে। 
তাই মাঠের বাইরে এসব স্মৃতিকে সাথে নিয়েই বিশ^কাপের মঞ্চে মুখোমুখি হবে অস্ট্রেলিয়া-আফগানিস্তান। ২০২২ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ^কাপে প্রথমবারের মত এই ফরম্যাটে মুখোমুখি হয়েছিলো দু’দল।  ম্যাচটি ৪ রানে জিতেছিলো অস্ট্রেলিয়া। 
আফগানিস্তান দল : রশিদ খান (অধিনায়ক), রহমানউল্লাহ গুরবাজ, ইব্রাহিম জাদরান, আজমতুল্লাহ ওমারজাই, করিম জানাত, নাজিবুল্লাহ জাদরান, মোহাম্মদ ইশাক, মোহাম্মদ নবি, গুলবাদিন নাইব, নাঙ্গিয়াল খারোতি, নুর আহমেদ, নাভিন উল হক, ফজলহক ফারুকি, ফরিদ মালিক ও হজরতুল্লাহ জাজাই।
অস্ট্রেলিয়া দল : মিচেল মার্শ (অধিনায়ক), ডেভিড ওয়ার্নার, ট্রাভিস হেড, জশ ইংলিশ, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, মার্কাস স্টয়নিস, এডাম জাম্পা, অ্যাস্টন আগার, ম্যাথু ওয়েড, ক্যামেরন গ্রিন, টিম ডেভিড, মিচেল স্টার্ক, জশ হ্যাজেলউড, প্যাট কামিন্স।

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়