BSS-BNhrch_cat_news-24-5
বাসস
  ২২ জানুয়ারি ২০২২, ২০:৪৪

এসডিজি ও দেশের সম্মৃদ্ধি অর্জনের লক্ষে শিশুশ্রম নিরসনে সবাইকে কাজ করতে হবে

ঢাকা, ২২ জানুয়ারি, ২০২২ (বাসস) : এসডিজি অর্জনে এবং দেশকে সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে নিতে  ২০৩০ সালের মধ্যে  শিশুশ্রম নিরসনে ট্রেড ইউনিয়ন ও গণমাধ্যম কর্মীসহ সবাইকে  আরো বেশি সক্রিয় ভূমিকা রাখতে একযোগে  কাজ করতে হবে। দেশের শিশু শ্রম নিরসনে সরকারের পাশাপাশি সবাইকে আরো বেশি সোচ্চার হতে হবে।   আজ সকালে  ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি নসরুল হামিদ হলে “শিশু অধিকার- মানবাধিকার: শিশুশ্রম নিরসনে ট্রেড ইউনিয়ন ও গণমাধ্যমের  ভূমিকা” শীর্ষক মতবিনিময় সভায় ট্রেড ইউনিয়ন ও সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ এ এসব কথা বলেন। 
ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড ইউনিয়ন কনফেডারেশন- বাংলাদেশ কাউন্সিল (আইটিইউসি- বিসি) ও  বাংলাদেশ লেবার রাইট্স সাংবাদিক ফোরাম  এই মতবিনিময় সভার আয়োজন করে। আইটিইউসি- বিসি’র চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশে ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) সভাপতি ওমর ফারফ। এতে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন  শ্রমিক নেতা সাকিল আখতার চৌধুরী। আলোচনায় অংশ নেন   লেবার রাইট্স সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি কাজী  আব্দুল হান্নান ও সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান, শ্রমিক নেতা শহীদুল্লাহ বাদল ও জাহাঙ্গীর হোসেন  প্রমুখ। 
মূল প্রবন্ধে বলা হয়, কোভিড-১৯ এর পরিণতিতে শিশুশ্রমের সংখ্যা বাড়ছে। শিশুশ্রম নিরসণে সরকারের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। বাংলাদেশ আইএলও কনভেনশনÑ ১৩৮ এখনো অনুসমর্থন  করেনি। এর আলোকে আইনের পরিপূর্ণ বাস্তবায়ন নিশ্চিত করতে হবে। ২০১২ সালে সরকার কর্তৃক শিশুশ্রম নিরসনে একটি নীতিমালা প্রণীত হলেও নির্ধারিত ২০২৫ সালের মধ্যে শিশুশ্রম মুক্ত কর্মক্ষেত্র নিশ্চিত করার লক্ষ্য অর্জনে অগ্রগতি খুবই সামান্য। কর্মক্ষেত্রকে শিশুশ্রম মুক্ত রাখতে মালিক পক্ষের ভুমিকা গুরুত্বপূর্ণ। তাঁরা কোনোভাবেই এ দায় এড়াতে পারেন না। প্রকৃতপক্ষে সরকার, মালিক, শ্রমিক সকলকেই শিশুশ্রম নিরসনে এগিয়ে আসতে হবে।
 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
বেটা ভার্সন