বিএনপি-জামায়াত, ঐক্যফ্রন্ট জনবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে : তথ্যমন্ত্রী

217

ঢাকা, ২ মার্চ, ২০১৯ (বাসস) : তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিএনপি-জামায়াত ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট সম্পূর্ণভাবে গণবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। বিগত সাধারণ নির্বাচনে তাদের শোচনীয় পরাজয়ের মধ্য দিয়ে এটি প্রমাণিত হয়েছে।
তিনি বলেন, জাতীয় সংসদ নির্বাচনে শোচনীয় পরাজয়ের পরে বিএনপি-জামায়াত ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট সিটি কর্পোরেশন নিবাচনে অংশ নেয়ার সাহস পায়নি। ঐক্যফ্রন্ট নেতা ড. কামাল হোসেনকে সঙ্গে নিয়ে বিএনপি এবং জামায়াত এখন বর্তমান সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করতে ব্যস্ত রয়েছে। তারা বার বার বিদেশীদের কাছে গিয়ে ধর্ণা দিচ্ছে।
মন্ত্রী আজ রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক মতবিনিময় সভায় বক্তৃতাকালে একথা বলেন। আওয়ামী লীগ সর্বইউরোপীয় ইউনিয়ন শাখার সভাপতি এমএ নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে বিভিন্ন ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশের আওয়ামী লীগ নেতা কর্মীদের সঙ্গে এই মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগ উপ দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়–য়া উপস্থিত ছিলেন। সর্ব ইউরোপীয় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ শাখার সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন।
আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি ও জামায়াত পেট্রোল বোমা ছুড়ে মানুষ হত্যা করেছে। জাতি সেসব ভুলে যায়নি। জাতি ব্যালটের মাধ্যমে এর জবাব দিয়েছে।
মন্ত্রী ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন (ডিএনসিসি) নির্বাচন সম্পর্কে বলেন, এই নির্বাচনে ৩১ ভাগ ভোটার উপস্থিতি অত্যন্ত ভাল উপস্থিতি। দুযোর্গপূর্ণ আবহাওয়া এবং দীর্ঘ সরকারি ছুটি থাকায় অনেকে গ্রামের বাড়ি যাওয়া সত্ত্বেও ৩১ ভাগ ভোটারের উপস্থিতি সফল গণতন্ত্রের পরিচয়ই বহন করে। বরং জনগণের ওপর পেট্রোল বোমা নিক্ষেপকারী বিএনপি-জামায়াত সংসদ নির্বাচনে শোচনীয় পরাজয়ের পর এই নির্বাচনে অংশ নেয়ার সাহস পায়নি। এ ছাড়া নির্বাচনে শক্ত কোন প্রতিদ্বন্দ্বী ছিল না এবং দিনটি ছিল বৃষ্টিমুখর দিন। তিনি আরো বলেন, এটি ছিল একটি উপ-নির্বাচন, ফলে ভোট কিছুটা কম পড়েছে। শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে এবং ভোটে কোন কারচুপি হয়নি। অথচ ভোট নিয়ে কোন কোন মহল বিভ্রান্তিকর বক্তব্য দিচ্ছে। তিনি বাংলাদেশের উন্নয়ন বিশ্বের সামনে তুলে ধরার জন্য তাদের প্রতি আহবান জানান। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে বাংলাদেশ এখন মধ্য আয়ের দেশে পরিণত হয়েছে। দেশে খাদ্য উদ্বৃত্ত রয়েছে।
তিনি আওয়ামী লীগের দুঃসময়ে ভূমিকা রাখার জন্য প্রবাসী আওয়ামী লীগ নেতাদের ধন্যবাদ জানান। তিনি আওয়ামী লীগ সর্ব ইউরোপীয় ইউনিয়নের নতুন কমিটিকে সহযোগিতা করার জন্য আওয়ামী লীগ নেতাদের প্রতি আহবান জানান।

image_printPrint