কোলকাতা বইমেলার উদ্বোধন

290

কোলকাতা, ২৮ জানুয়ারি, ২০২০ (বাসস) : কোলকাতা আন্তর্জাতিক বইমেলার উদ্বোধন করা হয়েছে। বাংলাদেশসহ মোট ২০টি দেশ এই মেলায় অংশগ্রহণ করছে। মেলা উপলক্ষে বাংলাদেশ থেকে আসছে ৪৫টি প্রকাশনী সংস্থা।
পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় মেলা প্রাঙ্গনস্থ স্টেট ব্যাংক আব ইন্ডিয়া (এসবিআই) মিলনয়তনে আজ সন্ধ্যা ৬টায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এই বই মেলার উদ্বোধন করেন।
অনুষ্ঠানে বিশেয অতিথি ছিলেন রাশিয়ার মন্ত্রী পর্যায়ের পদাধিকারী ভøাদিমির গ্রিগোরিয়েভ ও দিল্লীর রুশ রাষ্ট্রদূত কুদাসেভ নিকোলাই রিশাতোভিক। অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ও ভারতের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গও উপস্থিত ছিলেন।
এর মধ্য দিয়ে নয়দিনের লেখক, প্রকাশক, ক্রেতা-দর্শকের মিলন মেলা শুরু হলো। এটি হচ্ছে কোলকাতায় বিশ্বজুড়ে সাহিত্য, সংস্কৃতি আর চারুকলার বৃহত্তম আয়োজন।
এবারের বই মেলায় বাংলাদেশের প্যাভিলিয়নটি নির্মিত হয়েছে শান্তিনিকেতনে অবস্থিত বাংলাদেশ ভবনের আদলে। সামনে থাকছে বঙ্গবন্ধুর ম্যূরাল। উপ-হাইকমিশনের প্রথম সচিব (বানিজ্যিক) আজ বিকেলে বাসস’কে জানান, বই মেলার জন্য আমাদের সমস্ত আয়োজন সম্পন্ন হয়েছে। স্টলে স্টলে বই সাজনো হয়েছে।
তিনি জানান, এবার বাংলাদেশের সরকারী ও বেসকারী মিলিয়ে মোট ৪৫টি স্টল বসবে এবং বইমেলার শেষদিন কোলকাতা উপ-হাইকমিশনের আয়োজন ও বাংলাদেশ সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের পৃষ্ঠপোষকতায় অনুষ্ঠিত হবে ‘বাংলাদেশ দিবস’।
অনুষ্ঠানে সেমিনার ও বাংলাদেশী শিল্পীদের উপস্থাপনায় সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার আয়োজন থাকবে। সেমিনারের বিষয়বস্তু থাকবে ‘জন্মশতবর্ষে বঙ্গবন্ধু ও সোনার বাংলা স্বপ্নের বাস্তবায়ন’’।
মেলার আয়োজকরা জানান, বই মেলায় এবারের থিম দেশ রাশিয়া। প্রায় ৬০০ স্টল থাকছে বইমেলায়। লিটল ম্যাগাজিনের জন্য থাকছে ২০০টি স্টল। ব্যাবস্থা থাকবে ৯টি প্রবেশ ও প্রস্থানের রা¯াÍ। দুটি বড় হল তৈরি হচ্ছে প্রয়াত সাহিত্যিক নবনীতা দেবসেন ও বিশিষ্ট নাট্যকার গিরিশ কারনাডের নামে। এ ছাড়া বইমেলায় তৈরী করা হয়েছে একটি ‘সম্প্রীতি গেট’। বইমেলার নানা বৈশিষ্ট্যের মধ্যে এবার এশিয়াটিক সোসাইটির সাহায্যে তৈরী করা হয়েছে বিদ্যাসাগরের জন্মের দ্বিশতবর্ষ উপলক্ষে একটি বিদ্যাসাগর সংগ্রহশালা।
লিটল ম্যাগাজিন প্যাভিলিয়নের নামকরণ হয়েছে কবি সুভাষ মুখোপাধ্যায়ের নামে। প্রেস কর্ণারের নামকরণ হয়েছে বর্তমান পত্রিকার প্রয়াত সম্পাদক শুভা দত্তের নামে । মুক্তমঞ্চের নামকরণ হয়েছে অদ্রীশ বর্ধনের নামে। পাবলিশার্স অ্যান্ড বুক সেলার্স গিল্ডের সভাপতি ত্রিদিব চ্যাটার্জি জানান, মোট ২০টি দেশ এই মেলায় অংশগ্রহণ করছে। বই মেলায় বাংলাদেশ, রাশিয়া, কোস্টারিকা, স্পেন, স্কটল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, গুয়াতেমালা, আর্জেন্টিনা থেকে লেখকরা যোগ দেবেন।

image_printPrint