ঢাকা, রবিবার, নভেম্বর ১৯, ২০১৭

সংবাদ শিরোনাম 

জাতীয় সংবাদ : বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ বিশ্বের নিপীড়িত মানুষকে অনুপ্রাণিত করবে : নাগরিক সমাবেশে বক্তারা   |   রাষ্ট্রপতি : জনগণের কল্যাণকে প্রাধান্য দিতে সরকারি কর্মকর্তাদের প্রতি রাষ্ট্রপতির আহ্বান   |   প্রধানমন্ত্রী : রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে বাংলাদেশ-মিয়ানমার সংলাপে সহায়তা করতে আগ্রহী চীন * জাতির গর্ব সমুন্নত রাখতে দেশবাসীকে সতর্ক থাকতে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান   |   খেলাধুলার সংবাদ : গেইল-ম্যাককালামের ব্যর্থতার দিনে কুমিল্লার কাছে হারলো রংপুর * তিন বিদেশীর দুর্দান্ত নৈপুণ্যে রাজশাহীকে উড়িয়ে দিলো ঢাকা * ব্যালন ডিঅর জয়ের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী রোনাল্ডো * দ্বিতীয়বারের মত লেন্ডলের সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করলেন মারে    |    জাতীয় সংবাদ : রোহিঙ্গা প্রশ্নে আন্তর্জাতিক ফোরামে সহায়তার জন্য তুরস্ক ও নাইজেরিয়াকে ধন্যবাদ জানালেন শিল্পমন্ত্রী * মানসম্পন্ন উচ্চশিক্ষা ব্যবস্থা গড়তে বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে আরো সচেতন হতে হবে : শিক্ষামন্ত্রী   |   আবহাওয়া : খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রামের দুএক জায়গায় হালকা বৃষ্টি হতে পারে    |    বিভাগীয় সংবাদ : রাজশাহী চিনিকলে আখ মাড়াই শুরু * জয়পুরহাটে ৮ শ ১৪ জন মেধাবী শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা *হাইব্রিড মরিচ চাষে বগুড়ার সারিয়াকান্দির চাষিদের মুখে হাসি   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : তিব্বতে ৬ দশমিক ৯ মাত্রার ভূকম্পন *ফ্রান্সের উদ্দেশে রিয়াদ ত্যাগ হারিরির * মার্কিন নাগরিক অধিকার নেতা জেসি জ্যাকসন পার্কিনসনস রোগে আক্রান্ত   |    জাতীয় সংবাদ : যুদ্ধাপরাধের ২৯তম রায়ের আপেক্ষা * আগামীকাল থেকে প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা শুরু * আঞ্চলিক সহযোগিতা তথ্যপ্রযুক্তির বিশ্বে দেশকে এগিয়ে নেবে : তথ্যমন্ত্রী * বাংলাদেশকে জঙ্গিদের অভয়ারণ্য হতে দেয়া হবে না : ভূমি মন্ত্রী   |   

মিউনিখের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর ঢাকা ত্যাগ

ঢাকা, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ (বাসস) : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৫৩তম মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে যোগদানের জন্য তিনদিনের সরকারি সফরে বৃহস্পতিবার রাতে জার্মানির উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেন। জার্মানির বাভারিয়া প্রদেশের রাজধানী মিউনিখে ১৭ ফেব্রুয়ারি এ সম্মেলন শুরু হবে।
সফরকালে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মার্কেলের দ্বিপক্ষীয় বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।
বৃহস্পতিবার রাত ১০টা ৫ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী ইতিহাদ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট (ইওয়াই ২৫৩) যোগে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করেন।
শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, বেসামরিক বিমান চলাচল ও পর্যটন মন্ত্রী রাশেদ খান মেনন, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম ও ইকবাল সোবহান চৌধুরী, জাতীয় সংসদের চিফ হুইপ আ স ম ফিরোজ, মন্ত্রিপরিষদ সচিব, তিন বাহিনীর প্রধানগণ এবং উচ্চপদস্থ বেসামরিক ও সামরিক কর্মকর্তারা এ সময় বিমান বন্দরে উপস্থিত ছিলেন।
জার্মানি যাবার পথে সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিতে এক ঘন্টা যাত্রাবিরতি শেষে প্রধানমন্ত্রীর আজ সকালে জার্মানি পৌঁছার কথা রয়েছে।
মিউনিখ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে জার্মানিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ইমতিয়াজ আহমেদ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে স্বাগত জানাবেন। সেখান থেকে প্রধানমন্ত্রীকে সুসজ্জিত মোটর শোভাযাত্রা সহযোগে মিউনিখ ম্যারিয়ট হোটেলে নিয়ে যাওয়া হবে। জার্মানি সফরকালে প্রধানমন্ত্রী সেখানেই অবস্থান করবেন।
বিকেলে প্রধানমন্ত্রী মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনের উদ্বোধনী পর্বে যোগ দেবেন। সেখানে আগত অতিথিদের সম্মানে মিউনিখের মেয়র আয়োজিত এক সম্বর্ধনা অনুষ্ঠানেও যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী।
প্রধানমন্ত্রী ১৮ ফেব্রুয়ারি মিউনিখে জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মার্কেলের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে যোগ দেবেন এবং একইদিনে সম্মেলনের প্যানেল আলোচনায় জলবায়ু নিরাপত্তা এবং গুড কপ ব্যাড কপস বিষযক পর্যালাচনা সভায়ও যোগ দেবেন ।
সেদিন (১৮ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায়ই প্রধানমন্ত্রী ঢাকার উদ্দেশে মিউনিখ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করবেন।
আবুধাবিতে ৬ ঘন্টার যাত্রাবিরতি শেষে প্রধানমন্ত্রীর স্থানীয় সময় রাত ৮টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছার কথা রয়েছে। এই সফর উপলক্ষে আয়েজিত এক সংবাদ সম্মেলনে গতকাল পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী জানান, বর্তমান বিশ্বের নিরাপত্তা নিয়ে আলোচনায় বেস্ট থিঙ্ক ট্যাঙ্ক কনফারেন্স হিসেবে বিবেচিত এই সম্মেলনে বিশ্বের ২০টি দেশের রাষ্ট্র ও সরকার প্রধানগণ যোগ দেবেন।
১৯৬৩ সালে মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনের যাত্রা শুরু হয়। পাঁচ দশক ধরে এই সম্মেলনে বৈশ্বিক নিরাপত্তা ও শৃংখলার বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে আলোচনা হয়েছে।
প্রতিবছর ফেব্রুয়ারিতে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্র ও সরকার প্রধান, মন্ত্রী, আন্তর্জাতিক এবং বেসরকারি সংগঠনসমূহে নেতৃস্থানীয় ব্যক্তিবর্গসহ সারাবিশ্বের ঊর্ধ্বতন সিদ্ধান্ত গ্রহণকারীরা এ সম্মেলনে মিলিত হন। এছাড়া গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব, শিক্ষাবিদ এবং সুশীল সমাজের পদস্থ ব্যক্তিবর্গ নিরাপত্তা সংক্রান্ত বর্তমান ও ভবিষ্যত চ্যালেঞ্জ নিয়ে এতে আলোচনা করেন।