ঢাকা, বুধবার, জানুয়ারী ১৭, ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম 

বিনোদন ও শিল্পকলা : বাচ্চাদের বই পড়ায় আগ্রহী করে তুলতে হবে : সংস্কৃতি মন্ত্রী   |    জাতীয় সংবাদ : আতিকুল ইসলাম ঢাকা উত্তর সিটি কার্পোরেশন উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী * বরেণ্য সঙ্গীতশিল্পী শাম্মী আক্তার আর নেই   |    জাতীয় সংবাদ : বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় উচ্চ শিক্ষায় নতুন মাত্রা যোগ করেছে : শিক্ষামন্ত্রী * সুন্দরবন অঞ্চল নিরাপদ রাখতে আরো ৪টি র‌্যাব ক্যাম্প স্থাপন করা হবে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী * ঝড়-বৃষ্টির মৌসুমে স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তা ঝুঁকিতে ৫ লক্ষাধিক রোহিঙ্গা শিশু : ইউনিসেফ   |   জাতীয় সংসদ : একই পরিবারের চারজন পরিচালক রাখার বিধান করে সংসদে ব্যাংক কোম্পানী সংশোধন বিল পাস * বিচারাধীন মামলা দ্রুত নিষ্পত্তিতে কার্যকর পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে : আইনমন্ত্রী * সরকারি শূন্য পদ দ্রুত পূরণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে : জন প্রশাসন মন্ত্রী   |   প্রধানমন্ত্রী : প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ উন্নয়ন ফোরামের উদ্বোধন করবেন আগামীকাল * একনেকে ১৪ প্রকল্প অনুমোদন : তিন হাজার বিদ্যালয়ে একাডেমিক ভবন নির্মাণ করা হবে * আবুল খায়েরের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক   |   বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি : ঢাকা শহরের ছাদ ব্যবহার করে ১ হাজার মেগাওয়াট সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদন সম্ভব : নসরুল হামিদ   |    অর্থনীতি : নওগাঁয় রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংকের ৬ মাসে ৯২ কোটি ৩০ লাখ টাকার ঋণ বিতরণ    |    জাতীয় সংবাদ : এই অঞ্চলের স্বাধীনতার নেতাদের হত্যার কারণ খুুঁজে বের করতে হবে : প্রণব মুখোপাধ্যায় * ২ বছরের মধ্যে রোহিঙ্গা প্রত্যাবর্তন সম্পন্নে রূপরেখা চূড়ান্ত * ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলা : আরো দুই আসামীর পক্ষে যুক্তিতর্ক পেশ    |   খেলাধুলার সংবাদ : পুলিশ বর্ষসেরা খেলোয়াড় দ্বীন ইসলাম, লতা পারভীন ও আকলিমা *মাঠে খারাপ আচরণের জন্য কোহলিকে জরিমানা   |   শিক্ষা : বাংলাদেশের জন্মের পেছনে ঢাবির অবদান রয়েছে : ঢাবি উপাচার্য   |    বিভাগীয় সংবাদ : জয়পুরহাটে বোরো ধানের চারা রক্ষা করতে পলিথিনে ঢেকে রাখার পরামর্শ * নীলফামারীতে কৃষক নেমেছে বোরো আবাদের মাঠে : লক্ষ্যমাত্রা ৮৪ হাজার হেক্টর জমি   |   আবহাওয়া : আগামীকাল থেকে দক্ষিণাঞ্চলের শৈতপ্রবাহ কেটে যেতে পারে   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : ট্রানজিট বিষয়ে সিঙ্গাপুর ও মালয়েশিয়ার মধ্যে দ্বিপাক্ষিক চুক্তি স্বাক্ষর * আফগানিস্তানে আইএসের ২১ যোদ্ধা নিহত * জাপানের জলসীমায় ভেসে আসা নৌকা থেকে ৮ জনের লাশ উদ্ধার * লিবিয়ার পশ্চিম উপকূল থেকে অবৈধ ৩৬০ শরণার্থী উদ্ধার   |   

পবিত্র ধর্ম ইসলামের সাথে শান্তির কোন বিরোধ নেই : ইউজিসি চেয়ারম্যান

ঢাকা, ৩০ ডিসেম্বর, ২০১৭ (বাসস) : বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবদুল মান্নান বলেছেন, পবিত্র ধর্ম ইসলামের সাথে শান্তির কোন বিরোধ নেই। ইসলামের ব্যাখ্যা দানকারী অর্ধশিক্ষিতদের হাতে ইসলাম কখনো নিরাপদ নয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, ইসলাম ধর্মে সকল প্রকারের শান্তি বিনষ্টকারীকে পরিত্যাগের কথা বলা হয়েছে।
অধ্যাপক আবদুল মান্নান আজ চট্রগ্রামে আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বিশ্বশান্তি, নিরাপত্তা ইসলামের ভূমিকা শীর্ষক দুদিনব্যাপী এক আন্তর্জাতিক সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন।
তিনি বলেন, বর্তমান বিশ্বে অপরিণামদর্শী ও অর্ধ শিক্ষিত ব্যক্তিরা ইসলাম ধর্মের বিকৃত ব্যাখা উপস্থাপন করছে। তারা নূতন প্রজন্মকে বিপথগামী ও জঙ্গিবাদে উদ্ভুদ্ধ করে ইসলামের সাথে জঙ্গিবাদের যোগ সূত্র সৃষ্টির ষড়যন্ত্র করে পবিত্র ইসলাম ধর্মকে বিশ্বের কাছে জঙ্গিবাদ লালনকারী ধর্ম হিসেবে পরিচিত করে তুলেছে। এর ফলে দেশে দেশে ইসলাম সম্পর্কে মানুষের মনে ভুল ধারণা সৃষ্টি হচ্ছে।
এ সম্মেলনে সুদান, আলজেরিয়া, মালেয়শিয়া ও বাংলাদেশসহ ১৮টি দেশের ইসলামী গবষেকরা অংশগ্রহণ করছেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক কে এম গোলাম মহিউদ্দিনের সভাপতিত্বে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে উদ্ভোধনী অনুষ্ঠান শুরু হয়।
অধ্যাপক আবদুল মান্নান বলেন ১৪০০ বছর আগে হযরত মুহাম্মদ (স.) প্রণীত প্রথম লিখিত সংবিধান মদিনার সনদই ছিল বিশ্বে অসাম্প্রদায়িকতা ও ধর্মনিরপেক্ষতার প্রথম দলিল। সেই দলিলের উপর ভিত্তি করে ইসলামের প্রথম যুগে রাজ্য শাসনের রীতি-নীতি প্রণীত হয়েছে। তিনি প্রশ্ন রাখেন তাহলে কেন পরবর্তিকালে এক শ্রেণির ধর্মান্ধ মানুষ পবিত্র ইসলামের নামে অসহিষ্ণুতার জন্ম দিয়ে দেশে দেশে মানুষের মাঝে বিভেদ সৃষ্টি করেছে আর নিরীহ মানুষ হত্যা করছে? অধ্যাপক আবদুল মান্নান বলেন, ইসলামকে জঙ্গিবাদ হতে বিমুক্ত করতে হলে ইসলামের মূল বাণী নিয়ে গবেষণা করতে হবে এবং তা মুসলিম উম্মাহর মাঝে ছড়িয়ে দিতে হবে।
ইউজিসি চেয়ারম্যান বলেন,১৯৭১ সালে বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় যখন নিরপরাধ মানুষকে পাকিস্তান হানাদার বাহিনী নৃশংসভাবে হত্যা করে তখন মুসিলম অধ্যুষিত দেশগুলোর মধ্যে একমাত্র ইরাক ছাড়া আর কোন দেশ এর প্রতিবাদ করেনি, যা ছিল অত্যন্ত দুঃখজনক।
সম্মেলনে আগত বিদেশী অতিথিসহ সকল অংশগ্রহণকারী মিয়ানমারে রোহিঙ্গাদের উপর গণহত্যার তীব্র নিন্দা জানান।