ঢাকা, শনিবার, জানুয়ারী ২০, ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম 

প্রধানমন্ত্রী : আসাদের আত্মত্যাগে স্বাধীনতা আন্দোলন আরো গতিশীল হয় : প্রধানমন্ত্রী * মাইকেল মধুসূদন দত্ত বাংলা সাহিত্যের আকাশে এক উজ্জ্বল নক্ষত্র : প্রধানমন্ত্রী * সাস্থ্যবান প্রজন্ম গড়তে প্রাণিসম্পদ খাতের গুরুত্ব অপরিসীম : শেখ হাসিনা   |   রাষ্ট্রপতি : শহীদ আসাদের সর্বোচ্চ অবদান তরুণ প্রজন্মকে অনুপ্রেরণা যোগাবে : রাষ্ট্রপতি * প্রাণিস্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিতের মাধ্যমে ২০৩০ সালে এসডিজি বাস্তবায়ন সম্ভব হবে : রাষ্ট্রপতি * মধুসূদন দত্ত বহুমাত্রিক প্রতিভার অধিকারী ছিলেন : রাষ্ট্রপতি   |    জাতীয় সংবাদ : শহীদ আসাদ দিবস কাল * বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় ধাপেও পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে : আসাদুজ্জামান খাঁন * এমপিও ভূক্তির জন্য শিক্ষকদের আন্দোলনের প্রয়োজন নেই : আইনমন্ত্রী   |    বিভাগীয় সংবাদ : যশোরের সাগরদাঁড়িতে আগামীকাল শুরু হচ্ছে সপ্তাহব্যাপী মধুমেলা * মাগুরায় ১০ কিলোমিটার মহাসড়কে চার লেনের কাজ এগিয়ে চলছে   |   শিক্ষা : ঢাবি সিনেটে রেজিস্টার্ড গ্র্যাজুয়েট প্রতিনিধি নির্বাচনে ঢাকা কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ আগামীকাল   |    জাতীয় সংবাদ : বিশ্ব ইজতেমার ২য় পর্ব শুরু, লাখো মুসুল্লির জুমার নামাজ আদায় * নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে বিএনপি জনপ্রিয়তা যাচাই করতে পারে : হানিফ * তারুণ প্রজন্মকেই আধুনিক সমাজ বিনির্মাণে এগিয়ে আসতে হবে : শিরীন শারমিন * আইভীকে দেখতে হাসপাতালে ওবায়দুল কাদের   |   বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি : ড্রোন প্রযুক্তি ব্যবহারে উড়োজাহাজ তৈরি করেছে গোপালগঞ্জের কিশোর আরমানুল ইসলাম   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : দ.কোরিয়ায় অগ্রবর্তী বাদকদল পাঠাবে উ.কোরিয়া * আফগানিস্তানে সরকারি বাহিনীর অভিযানে ৮ জঙ্গি নিহত * ইরানের পারমাণু চুক্তির শর্ত কঠিন করাই মার্কিন আইনপ্রণেতাদের লক্ষ্য   |   আবহাওয়া : আবহাওয়া শুষ্ক এবং রাত ও দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে   |   খেলাধুলার সংবাদ : রেকর্ড ব্যবধানে শ্রীলংকাকে হারিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে বাংলাদেশ *তামিমের ১১, সাকিবের ১০ ও সাব্বিরের ১ হাজার রান *৩শ ম্যাচের মাইলফলক স্পর্শ করলেন মুশফিকুর রহিম   |   

বিক্ষোভের পর ইরানে সরকারের পক্ষে গণমিছিল

তেহরান, ৩১ ডিসেম্বর, ২০১৭ (বাসস ডেস্ক) : ইরানে শনিবার সরকারের সমর্থনে বিভিন্ন শহরে হাজারো মানুষ মিছিল করেছে। সরকারের বিরুদ্ধে দুই দিনের বিক্ষোভের পর শনিবার সরকার সমর্থকরা তাদের শক্তি প্রদর্শন করল।
রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে দেখা গেছে, কালো কাপড় পরা সরকারের বিপুল সংখ্যক সমর্থক রাজধানী তেহরান, দ্বিতীয় বৃহত্তম নগরী মাশাদ ও আরো কয়েকটি শহরে জমায়েত হয়েছে। প্রজাবিদ্রোহ সমাপ্তির বার্ষিকী উপলক্ষ্যে তারা এই মিছিল বের করে। ২০০৯ সালের বিতর্কিত নির্বাচনের পর ওটাই ছিল সবচেয়ে বড়ো ধরনের অস্থিরতা।
খবর এএফপির।
কাকতলীয়ভাবে সরকার বিরোধী বিক্ষোভের পরপরই পূর্বনির্ধারিত সরকারপন্থীদের এই মিছিলটি হল। বৃহস্পতিবার মাশাদ থেকে সরকার বিরোধী বিক্ষোভ মিছিল দেশটির বিভিন্ন শহরে ছড়িয়ে পড়ে।
প্রথমিকভাবে দূর্বল আর্থিক ব্যবস্থার ও নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে নাগরিকরা শান্তিপূর্ণভাবে বিক্ষোভ করে। খুব দ্রুত তা সরকার বিরোধী বিক্ষোভে পরিণত হয়ে দেশব্যাপী ছড়িয়ে পড়ে।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে শিয়াদের পবিত্র নগরী কোয়ামে শুক্রবার বিকেলে হাজার হাজার মানুষের মিছিল দেখা যায়।
এ সময় মিছিলকারীরা স্বৈরতন্ত্র নিপাত যাক! ও রাজবন্দীদের মুক্তি দাও ! বলে স্লোগান দেয়। এমনকি মিছিলকারীরা সাবেক রাজতন্ত্রের পক্ষেও স্লোগান দেয়।
অন্যান্যরা দেশের অভ্যন্তরের বিভিন্ন সমস্যার দিকে লক্ষ্য না করে ফিলিস্তিনী ও অন্যান্য আঞ্চলিক আন্দোলনে সরকারের সহায়তার নিন্দা জানায়।
রাশত, হামেদান, কার্মানশাহ্, কাজভিন ও অন্যান্য নগরীতে বিপুল সংখ্যক মানুষ সরকার বিরোধী মিছিলে অংশ নেয়। পুলিশ মিছিলকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে জলকামান ব্যবহার করে।