ঢাকা, বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী ১৮, ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম 

রাষ্ট্রপতি : বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের চমৎকার সম্পর্ক রয়েছে : রাষ্ট্রপতি   |    বিভাগীয় সংবাদ : দিনাজপুরে নাশকতার মামলায় ৪ জেএমবি সদস্যের জামিন আবেদন নামঞ্জুর   |   জাতীয় সংসদ : বঙ্গবন্ধু সেতুতে ডুয়েলগেজ রেললাইনসহ পৃথক রেল সেতু নির্মাণ প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে : প্রধানমন্ত্রী * আগামী বাজেটে বেসরকারি বিদ্যালয়ের এমপিও অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে সরকার সিদ্ধান্ত নিবে : প্রধানমন্ত্রী *সকল জেলায় হাইটেক পার্ক স্থাপন করা হবে : প্রধানমন্ত্রী   |   জাতীয় সংসদ : সরকার প্রতিবন্ধী শিশুদের শিক্ষার প্রতি অত্যন্ত যত্নশীল : প্রধানমন্ত্রী * ২০০৯ সাল থেকে অদ্যাবধি রেলওয়ের বিভিন্ন পদে ১০ হাজার ৩৯১ জনকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে : রেলপথ মন্ত্রী * কিছু রাজনীতিবিদ নির্বাচন এলে বক্রপথে ক্ষমতায় যাবার স্বপ্ন দেখে : প্রধানমন্ত্রী   |   শিক্ষা : শর্ত পূরণ না করা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে : শিক্ষামন্ত্রী   |   বিনোদন ও শিল্পকলা : প্রাচ্যনাটের অ্যাকটিং স্কুলের নতুন নাটক নৈশভোজ মঞ্চস্থ হলো   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : ট্রাম্পের স্বাস্থ্যগত জটিলতা নেই : চিকিৎসক   |   প্রধানমন্ত্রী : উন্নত দেশগুলোকে বাংলাদেশের পাশে দাঁড়ানোর আহবান প্রধানমন্ত্রীর   |   আবহাওয়া : দেশের কিছু স্থানে শৈত্যপ্রবাহ কমবে   |   খেলাধুলার সংবাদ : মিরপুর স্টেডিয়ামের শততম ওয়ানডে ম্যাচে শ্রীলংকাকে ২৯১ রানের টার্গেট দিলো জিম্বাবুয়ে *আমাদের পেস বোলাররাই সেরা : রুবেল   |    জাতীয় সংবাদ : ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন বন্ধে সরকারের কোন হাত নেই : ওবায়দুল কাদের *ঢাকা উত্তর সিটির উপ-নির্বাচন স্থগিত * নবম ওয়েজ বোর্ডে সাংবাদিকদের স্বার্থ গুরুত্ব পাবে: তারানা হালিম * আপিল শুনানির কার্যতালিকায় যুদ্ধাপরাধী আজহার-কায়সার-সুবহানের মামলা   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : ফিলিস্তিনের জন্য জাতিসংঘ সংস্থা থেকে বরাদ্দকৃত অর্থ প্রত্যাহার যুক্তরাষ্ট্রের * মিয়ানমারে রাখাইন বৌদ্ধদের ওপর পুলিশের হামলা ॥ নিহত ৭ * পেরুর সাবেক প্রেসিডেন্টের হাসপাতাল ত্যাগ * মেক্সিকোয় গণকবর থেকে ৩২টি লাশ উদ্ধার    |   

নেত্রকোনার মানুষ আজও সাত শহীদ মুক্তিযোদ্ধার স্মৃতি স্মরণ করে

নেত্রকোনা, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৪ (বাসস) : ১৯৭১ সালের ২৬ জুলাই নেত্রকোনা জেলার কলমাকান্দা উপজেলার নাজিরপুর বাজার এলাকায় পাকিস্তানী সৈন্যদের সঙ্গে এক সম্মুখ যুদ্ধে ৭ মুক্তিযোদ্ধা শহীদ হন। প্রতিবছর জেলার জনগণ এই বীর মুক্তিযোদ্ধাদেরকে শ্রদ্ধাভাবে স্মরণ করে।
নেত্রকোনা জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের উদ্যোগে প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও ঐতিহাসিক নাজিরপুর দিবস হিসেবে পালন করে। মহান মুক্তিযুদ্ধে এই সাতজন শহীদ মুক্তিযোদ্ধার গৌরবোজ্জ্বল ভূমিকা এবং তাদের সর্বোচ্চ আত্মত্যাগ তুলে ধরা হয়।
মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস এবং নেত্রকোনা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সূত্র মতে শহীদ মুক্তিযোদ্ধারা হলেন, দিজেন্দ্র, ভবতোষ, নুরুজ্জামান, ইয়ার মাহমুদ, ফজলুল হক, ড. আব্দুল আজিজ ও মোহম্মদ জামাল উদ্দিন। শহীদ সাত মুক্তিযোদ্ধাসহ ১৭ জন মুক্তিযোদ্ধার একটি দল গোপন সূত্রে খবর পেয়ে পাকিস্তানী সৈন্যদের প্রতিরোধ করতে প্রস্তুতি নেয়। এক প্লাটুন পাকিস্তানী সৈন্য আধুনিক অস্ত্র-শস্ত্রসহ জেলার কমলাকান্দা সদর উপজেলা সদরে যেতে নাজিরপুর বাজারে যাচ্ছিল। খবর পেয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধা নাজমুল হক তারার নেতৃত্বে মুক্তিযোদ্ধাদের একটি দল মাতৃভূমিকে শত্রুমুক্ত করতে জীবন আত্মোৎসর্গ করতে মনস্থির করে এবং শক্তিশালী পাকিস্তানী সেনা বাহিনীর উপর হামলা চালাতে প্রস্তুতি নেয়। এদিনে সকাল সাড়ে ১১টায় মুক্তিযোদ্ধারা দেখতে পায় পাকিস্তানী সৈন্যরা অত্যাধুনিক অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে কয়েকটি নৌকায় করে বাজারের দিকে আসছে।
বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রহিম বাসসকে জানান, নাজিরপুর সম্মুখ যুদ্ধে ১৯ জন পাকিস্তানী সৈন্য নিহত হয়।
এ ঘটনায় জেলায় পাক সেনাদের মনোবল ভেঙ্গে যায়। সম্মুখ যুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধাদের ঐতিহাসিক বিজয়ের খবরে জেলার মুক্তিযোদ্ধাদের মনোবল আরো বেড়ে যায়। তিনি বলেন, ঐতিহাসিক নাজিরপুর যুদ্ধের স্মৃতি এবং সাত শহীদ মুক্তিযোদ্ধার গৌরবোজ্জ্বল ভূমিকা মুক্তিযুদ্ধের ৪৩ বছর পর আজও তার হৃদয়ে অম্লান হয়ে আছে।