ঢাকা, বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী ১৮, ২০১৮

সংবাদ শিরোনাম 

রাষ্ট্রপতি : বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের চমৎকার সম্পর্ক রয়েছে : রাষ্ট্রপতি   |    বিভাগীয় সংবাদ : দিনাজপুরে নাশকতার মামলায় ৪ জেএমবি সদস্যের জামিন আবেদন নামঞ্জুর   |   জাতীয় সংসদ : বঙ্গবন্ধু সেতুতে ডুয়েলগেজ রেললাইনসহ পৃথক রেল সেতু নির্মাণ প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে : প্রধানমন্ত্রী * আগামী বাজেটে বেসরকারি বিদ্যালয়ের এমপিও অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে সরকার সিদ্ধান্ত নিবে : প্রধানমন্ত্রী *সকল জেলায় হাইটেক পার্ক স্থাপন করা হবে : প্রধানমন্ত্রী   |   জাতীয় সংসদ : সরকার প্রতিবন্ধী শিশুদের শিক্ষার প্রতি অত্যন্ত যত্নশীল : প্রধানমন্ত্রী * ২০০৯ সাল থেকে অদ্যাবধি রেলওয়ের বিভিন্ন পদে ১০ হাজার ৩৯১ জনকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে : রেলপথ মন্ত্রী * কিছু রাজনীতিবিদ নির্বাচন এলে বক্রপথে ক্ষমতায় যাবার স্বপ্ন দেখে : প্রধানমন্ত্রী   |   শিক্ষা : শর্ত পূরণ না করা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে : শিক্ষামন্ত্রী   |   বিনোদন ও শিল্পকলা : প্রাচ্যনাটের অ্যাকটিং স্কুলের নতুন নাটক নৈশভোজ মঞ্চস্থ হলো   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : ট্রাম্পের স্বাস্থ্যগত জটিলতা নেই : চিকিৎসক   |   প্রধানমন্ত্রী : উন্নত দেশগুলোকে বাংলাদেশের পাশে দাঁড়ানোর আহবান প্রধানমন্ত্রীর   |   আবহাওয়া : দেশের কিছু স্থানে শৈত্যপ্রবাহ কমবে   |   খেলাধুলার সংবাদ : মিরপুর স্টেডিয়ামের শততম ওয়ানডে ম্যাচে শ্রীলংকাকে ২৯১ রানের টার্গেট দিলো জিম্বাবুয়ে *আমাদের পেস বোলাররাই সেরা : রুবেল   |    জাতীয় সংবাদ : ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন বন্ধে সরকারের কোন হাত নেই : ওবায়দুল কাদের *ঢাকা উত্তর সিটির উপ-নির্বাচন স্থগিত * নবম ওয়েজ বোর্ডে সাংবাদিকদের স্বার্থ গুরুত্ব পাবে: তারানা হালিম * আপিল শুনানির কার্যতালিকায় যুদ্ধাপরাধী আজহার-কায়সার-সুবহানের মামলা   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : ফিলিস্তিনের জন্য জাতিসংঘ সংস্থা থেকে বরাদ্দকৃত অর্থ প্রত্যাহার যুক্তরাষ্ট্রের * মিয়ানমারে রাখাইন বৌদ্ধদের ওপর পুলিশের হামলা ॥ নিহত ৭ * পেরুর সাবেক প্রেসিডেন্টের হাসপাতাল ত্যাগ * মেক্সিকোয় গণকবর থেকে ৩২টি লাশ উদ্ধার    |   

জয়পুরহাটে খনজনপুর উচ্চবিদ্যালয় শতবর্ষ উদযাপন

জয়পুরহাট, ২৩ ডিসেম্বর, ২০১৭ (বাসস) : জেলার ঐতিহ্যবাহী খনজনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের শতবর্ষ উৎযাপন উপলক্ষে আজ শনিবার প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের একটি বর্ণাঢ্য আনন্দ শোভাযাত্রা শহর প্রদক্ষিণ করে বিদ্যালয়ের খেলার মাঠে শেষ হয়।
খনজনপুর উচ্চ বিদ্যালয়, যার পূর্ব নাম ছিল খনজনপুর খাসমহল কাচারী বাড়ি পাঠশালা। জয়পুরহাট শহরের পশ্চিম প্রান্তে খনজনপুর গ্রামে ১৯০১ সালে ১৬ বিঘা জমির উপর স্থাপিত বিদ্যালয়টি এখনও আশপাশের অর্ধশত গ্রামের ছেলেমেয়েদের শিক্ষার আলোকবর্তিকা হিসাবে কাজ করছে।
খনজনপুরের উত্তর-পশ্চিম পাশ দিয়ে ছোট যমুনা নদী প্রবাহিত। বৃটিশ আমলে এ নদী পথে বহু ইংরেজ বণিক ব্যবসা বানিজ্য করার জন্য এখানে আসেন। পরবর্তীতে পিটার নামক এক ইংরেজ এখানে একটি কুঠি স্থাপন করে নীল চাষ শুরু করেন। এ এলাকায় ধর্ম প্রচারের জন্য মিশনারি প্রতিষ্ঠা করাসহ খাসমহলের কার্যক্রম শুরু হয় ইংরেজ পিটারের সুসজ্জিত বাংলোতে। অবিভক্ত বাংলায় সরকারের যে দুটি খাসমহল ছিল খনজনপুর খাসমহল তার অন্যতম। খাসমহল কর্মচারীদের সন্তান-সন্ততিদের শিক্ষার জন্য কাচারী বাড়ি সন্নিকটে পিটারের পরিত্যাক্ত বাংলোতে পাঠশালাটির কার্যক্রম শুরু হয়।
এ বিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষার্থী সরকারের উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তা, কেউ প্রকৌশলী, কেউবা চিকিৎসক হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন। স্কুলের সেই দিনের স্মৃতি বর্ণনা করতে গিয়ে আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন অনেকেই।
বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন এমপি প্রধান অতিথি হিসাবে শতবর্ষ উৎযাপন কর্মসূচির উদ্বোধন করেন। প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক আ ন ম নুরুল ইসলাম অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো: মোকাম্মেল হক, পুলিশ সুপার রশীদুল হাসান, স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মাসুদ ই রেজা। বর্তমান প্রধান শিক্ষক আজিজুল ইসলাম অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন।
শতবর্ষ উদযাপন কর্মসূচিতে অংশ্রগ্রহণ করার জন্য বিদ্যালয়ের নতুন ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের মিলন মেলায় পরিণত হয়েছে খনজনপুর উচ্চ বিদ্যালয় খেলার মাঠ। শিক্ষকদের সংবর্ধনা, বৃক্ষরোপণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শতবর্ষ উদযাপনের সমাপ্তি ঘটবে বলে জানান আয়োজকরা।