বাসস ক্রীড়া-১১ : পেরেরার ব্যাটিং-এ ঐতিহাসিক টেস্ট জয় শ্রীলংকার

বাসস ক্রীড়া-১১
ক্রিকেট-টেস্ট
পেরেরার ব্যাটিং-এ ঐতিহাসিক টেস্ট জয় শ্রীলংকার
ডারবান, ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ (বাসস) : ৩০৪ রানের জয়ের লক্ষ্যে ২২৬ রানেই নবম উইকেট হারিয়ে ডারবান টেস্টে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে হারের দ্বারপ্রান্তে সফরকারী শ্রীলংকা। তবে শেষ ব্যাটসম্যান বিশ্ব ফার্নান্দোকে নিয়ে দশম উইকেটে অবিচ্ছিন্ন ৭৮ রানের জুটি গড়ে লংকানদের ঐতিহাসিক টেস্ট জয়ের স্বাদ দেন বাঁ-হাতি ব্যাটসম্যান কুশল পেরেরা। ১ উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয় লংকানরা। এক প্রান্ত আগলে ১৫৩ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেন পেরেরা। ৬ রানে অপরাজিত থাকেন ফার্নান্দো। এই জয়ে দুই ম্যাচের সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল শ্রীলংকা।
ডারবানে ৩০৪ রানের জয়ের লক্ষ্যে তৃতীয় দিন শেষে ৩ উইকেটে ৮৩ রান করেছিলো শ্রীলংকা। তাই ম্যাচ জয়ের জন্য বাকী ৭ উইকেটে ২২১ রান প্রয়োজন ছিলো লংকানদের। ওশাদা ফার্নান্দো ২৮ ও পেরেরা ১২ রানে অপরাজিত ছিলেন।
৩৭ রান করা ওশাদাকে ফিরে দিয়ে চতুর্থ দিন সকালে দক্ষিণ আফ্রিকাকে প্রথম সাফল্য এনে দেন দক্ষিণ আফ্রিকার পেসার ডেল স্টেইন। ৩৮তম ওভারের দ্বিতীয় বলে ওশাদাকে শিকারের পর ঐ ওভারেই উইকেটরক্ষক নিরোশান ডিকবেলাকে ফেরত পাঠান স্টেইন। তাই ১১০ রানে পঞ্চম উইকেট হারিয়ে খাদের কিনারায় পড়ে যায় শ্রীলংকা। এখান থেকে দলকে টেনে তুলেন পেরেরা ও ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। ষষ্ঠ উইকেটে ৯৬ রান যোগ করেন তারা। এতে দু’শ রানের কোটা পেরিয়ে যায় শ্রীলংকা ।
পেরেরা-ডি সিলভার জমে যাওয়া জুটিতে ভাঙ্গন ধরিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ম্যাচে ফেরার পথ দেখান বাঁ-হাতি স্পিনার কেশব মহারাজ। ৪৮ রান করেন ডি সিলভা। দলীয় ২০৬ রানে ষষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হন ডি সিলভা। আর ২২৬ রানে নবম উইকেট হারায় শ্রীলংকা। ফলে নিশ্চিত হার দেখে ফেলে লংকানরা।
কিন্তু শেষ ব্যাটসম্যান ফার্নান্দোকে নিয়ে প্রতিপক্ষের বোলারদের সামনে প্রতিরোধের দেয়াল গড়ে তুলেন পেরেরা। রান তোলার কাজটা নিজেই করছিলেন তিনি। তাকে শুধুমাত্র সঙ্গ দিচ্ছিলেন ফার্নান্দো। রান তোলার চাইকে রানিং বিটুইন দ্য উইকেটে বেশ পারদর্শী ছিলেন ফার্নান্দো। এক পর্যায়ে টেস্ট ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় সেঞ্চুরিও তুলে নেন পেরেরা। তিন অংকে পা দিয়েই চড়া মেজাজে ব্যাট করেন তিনি। তাই পেরেরার ব্যাটে চড়ে প্রয়োজনীয় রান স্কোরবোর্ডে জমা হচ্ছিলো শ্রীলংকার। শেষ পর্যন্ত পেরেরার ব্যাটেই জয় নিশ্চিত হয় শ্রীলংকা। শেষ উইকেটে অবিচ্ছিন্ন ৭৮ রান লংকানদের জয় নিশ্চিত করে। এরমধ্যে ৬৮ বলে ৬৭ রান ছিলো পেরেরার। ফার্নান্দোর করেন ২৭ বলে ৬। ১২টি চার ও ৫টি ছক্কায় ২০০ বলে অপরাজিত ১৫৩ রান করেন পেরেরা। তাই ম্যাচ সেরাও হন পেরেরা। ডারবানের ভেন্যুতে ৩০৪ রান তাড়া করে ম্যাচ জয়ে এটি তৃতীয়স্থানে।
আগামী ২১ ফেব্রুয়ারি থেকে পোর্ট এলিজাবেথে শুরু হবে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট।
সংক্ষিপ্ত স্কোর :
দক্ষিণ আফ্রিকা : ২৩৫ ও ২৫৯, ৭৯.১ ওভার (ডু-প্লেসিস ৯০, ডি কক ৫৫, এম্বুলডেনিয়া ৫/৬৬)।
শ্রীলংকা : ১৯১ ও ৩০৪/৯, ৮৫.৩ ওভার (পেরেরা ১৫৩*, ডি সিলভা ৪৮, মহারাজ ৩/৭১)।
ফল : শ্রীলংকা ১ উইকেটে জয়ী।
ম্যাচ সেরা : কুশল পেরেরা (শ্রীলংকা)।
সিরিজ : দুই ম্যাচের সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল শ্রীলংকা।
বাসস/এএমটি/১৯৫৫/স্বব