হয়রানিমুক্ত শুল্কবান্ধব পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে : রাষ্ট্রপতি

145

ঢাকা, ২৫ জানুয়ারি, ২০১৯ (বাসস) : রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ বলেছেন, শুল্কদাতারা যাতে সহজে ও স্বাচ্ছন্দে শুল্ক পরিশোধ করতে পারে, সে লক্ষ্যে হয়রানিমুক্ত শুল্কবান্ধব পরিবেশ সৃষ্টি করতে হবে।
আগামীকাল ২৬ জানুয়ারি আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস উপলক্ষে দেয়া এক বাণীতে রাষ্ট্রপতি একথা বলেন।
রাষ্ট্রপতি আজ এক বাণীতে ‘আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস ২০১৯’ উপলক্ষে কাস্টমস বিভাগের সকল স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান।
মোঃ আবদুল হামিদ বলেন, বর্তমানে বাণিজ্য, ভ্রমণসহ বিভিন্ন কারণে মানুষের দেশ-বিদেশে যাতায়াত এবং বিশ্বময় পণ্য পরিবহন অন্য যে কোনো সময়ের তুলনায় বহুগুণ বৃদ্ধি পেয়েছে। এর ফলে ব্যবসা-বাণিজ্য সহজীকরণসহ সীমান্ত সুরক্ষা ও নিরাপদ ভ্রমণের স্বার্থে সনাতন পদ্ধতির পরিবর্তে তথ্য প্র্রযুক্তিনির্ভর সীমান্ত ব্যবস্থাপনার গুরুত্ব বৃদ্ধি পেয়েছে। বর্তমান বৈশ্বিক প্রেক্ষাপটে এ বছর বিশ্ব কাস্টমস দিবসের মূল প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে, “এসএমএআরটি বর্ডারস ফর সিমলেস ট্রেড এন্ড ট্রান্সপোর্ট ”- অত্যন্ত যথার্থ হয়েছে বলে তিনি মনে করেন।
রাষ্ট্রপতি আরও বলেন, ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারণের পাশাপাশি রাজস্ব আহরণ বৃদ্ধির মাধ্যমে দেশের উন্নয়ন কার্যক্রম আরো বেগবান করতে নিরাপদ ও অবাধ বাণিজ্য পরিবেশ নিশ্চিত করা অত্যন্ত জরুরি।
তিনি আশা প্রকাশ করেন, বাংলাদেশ কাস্টমস উন্নত তথ্যপ্র্রযুক্তি ব্যবহার ও কাস্টমস পদ্ধতি সরলীকরণের মাধ্যমে নিরাপদ ও অবাধ বাণিজ্যের পরিবেশ সৃষ্টি করতে সক্ষম হবে। দেশের অর্থনীতিকে টেকসই ও শক্তিশালীকরণসহ রূপকল্প ২০২১ এবং রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়ন সুগম করতে বাংলাদেশ কাস্টমস নিরলস প্রয়াস অব্যাহত রাখবে বলে রাষ্ট্রপতি প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।
রাষ্ট্রপতি ‘আন্তর্জাতিক কাস্টমস দিবস ২০১৯’ উপলক্ষে আয়োজিত সকল কর্মসূচির সার্বিক সফলতা কামনা করেন।

image_printPrint