বাসস দেশ-৩৪ : পরিবেশ বান্ধব প্রকল্প গ্রহণের আহবান জানালেন মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রী

153

বাসস দেশ-৩৪
নারায়ন-চিড়িয়াখানা-উপদেষ্টা
পরিবেশ বান্ধব প্রকল্প গ্রহণের আহবান জানালেন মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রী
ঢাকা, ৪ নভেম্বর, ২০১৮ (বাসস) : মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রী নারায়ন চন্দ্র চন্দ চিড়িয়াখানার বিনোদন ধর্মী উদ্দেশ্য-লক্ষ্যের সাথে সংগতিপূর্ণ নয় এমন সব প্রকল্প বাতিল করার নির্দেশ দিয়েছেন। একই সঙ্গে তিনি জনগণ ও পরিবেশ বান্ধব প্রকল্প গ্রহণের আহবান জানিয়েছেন।
আজ্ব জাতীয় চিড়িয়াখানার উপদেষ্টা কমিটির এক সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ আহবান জানান।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি, মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব রইছ উল আলম মন্ডল, প্রাণিসম্পদ অধিদফতরের ডিজি হীরেশ রঞ্জন ভৗমিক, প্রাণি সম্পদ গবেষণা ইনস্টিটিউটের ডিজি নাথুরাম সরকার, মৎস অধিদপ্তরের ডিজি আবু সাঈদ মোঃ রাশেদুল হক প্রমুখ বক্তৃতা করেন।
মন্ত্রী বলেন, অত্যাধুনিক চিড়িয়াখানার স্বার্থে সংশ্লিষ্ট অভিজ্ঞতা সম্পন্ন কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বদলি পদ্ধতি বাতিলসহ তাদের বিভিন্ন দেশের উন্নত চিড়িয়াখানা পরিদর্শন মাধ্যমে অভিজ্ঞতার্জনের গুরুত্ব দিতে হবে।
সভায় জাতীয় চিড়িয়াখানাসহ রংপুর চিড়িয়াখানার আধুনিকায়নের জন্য ‘মাস্টার প্ল্যান স্ট্রাকচারাল ডিজাইন প্রণয়নসহ ৩৪ কোটি টাকার একটি প্রকল্প গ্রহণ করা হয়। চিড়িয়াখানার সৌন্দর্য ও পরিবেশরক্ষার স্বার্থে চিড়িয়াখানায় ভাড়ায় পিকনিক করার সুযোগ বাতিল করে পিকনিক-স্পটগুলো বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। চিড়িয়াখানার পরিবেশের ওপর বিরূপ প্রভাবের কারণে চিড়িয়াখানার লেকে টিকেট কেটে বড়শিতে মাছ ধরা বন্ধ অথবা সীমিত করার পরামর্শও দেয় উপদেষ্টা কমিটি। চিড়িয়াখানার ভিতরে উৎসব দ্বীপ ও নিঝুম দ্বীপ নামক ২টি পিকনিক-স্পটে যথাক্রমে ১০ ও ৬ হাজার টাকায় ভাড়া দিয়ে যে কেউ এত দিন ব্যাপী বনভোজন করার অনুমতি পেতো।
চিড়িয়াখানার ভবিষ্যত পরিকল্পনা, সার্বিক উন্নয়নসহ গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণের অধিকারী ৩২ সদস্য বিশিষ্ট উপদেষ্টা কমিটি বছরে দু’বার সভার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকে। ২০১৪ সালে গঠিত উপদেষ্টা কমিটি পুনর্গঠন করে ২৪ অক্টোবরে যে নতুন কমিটি গঠন করা হয়, এটিই তার প্রথম সভা।
সভায় চিড়িয়াখানায় প্রবেশের ফি ৩০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৫০ টাকায় নির্ধারণের পাশাপাশি চিড়িয়াখানার বাইরের গাড়ি-পার্কিংয়ের ফি বাড়ানোর সিদ্ধান্তসহ রিক্সা, ভ্যান বা-সাইকেলের প্রচলিত পার্কিং-পদ্ধতি বাতিল করা হয়। এছাড়াও ১১৫টি কার ও ১০টি মিনিবাসের সংকুলান সম্পন্ন একটি বর্ধিত বহি:পার্কিং নির্মাণেরও সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।
বাসস/সবি/এমএআর/২০০২/-আসচৌ