সংসদে বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা বিল, ২০১৮ পাস

939

সংসদ ভবন, ২৭ অক্টোবর, ২০১৮ (বাসস) : বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা অধ্যাদেশ, ১৯৭৯ রহিত করে সময়ের চাহিদার প্রতিফলনে প্রয়োজনীয় বিধান সংযোজন করে নতুন আইন করার বিধান করে আজ সংসদে বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা বিল, ২০১৮ সংশোধিত আকারে পাস করা হয়েছে।
তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বিলটি পাসের প্রস্তাব করেন।
বিলের বিধান অবিলম্বে কার্যকর করার বিধান করা হয়।
বিলে বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা অধ্যাদেশ, ১৯৭৯ এর অধীন প্রতিষ্ঠিত বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা এমনভাবে বহাল রাখার বিধান করা হয়েছে যেন তা এ বিলের বিধানের অধীন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এর প্রধান কার্যালয় ঢাকায় এবং সরকারের পূর্বানুমোদনক্রমে যে কোন স্থানে শাখা কার্যালয় স্থাপনের বিধান বিলে করা হয়।
বিলের সংজ্ঞায় কর্মচারী অর্থ সংস্থার সাংবাদিক এবং কর্মকর্তাও অন্তর্ভুক্ত বলে উল্লেখ করা হয়েছে।
বিলে সংস্থার পরিচালনা ও প্রশাসনিক কার্যক্রম পরিচালনায় একজন চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে ১৩ সদস্যের পরিচালনা বোর্ড গঠনের বিধান করা হয়।
বিলে সংস্থার দায়িত্ব ও কার্যাবলী, বোর্ড গঠন, চেয়ারম্যান ও পরিচালক নিয়োগ ও মেয়াদ, বোর্ডের সভা, কর্মচারী নিয়োগ, ক্ষমতা অর্পণ, সংস্থার তহবিল, বাজেট, হিসাবরক্ষণ ও নিরীক্ষা, প্রতিবেদন, বিধি-প্রবিধি প্রণয়নের ক্ষমতাসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে সুনির্দিষ্ট বিধান করা হয়েছে।
বিলে সরকার থেকে নির্ধারিত মেয়াদ ও শর্তে সাংবাদিকতায় ন্যূনতম ১৮ বছরের অভিজ্ঞতা সম্পন্ন কোনো সাংবাদিককে ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসাবে নিয়োগের বিধান করা হয়। ব্যবস্থাপনা পরিচালক সংস্থার প্রধান সম্পাদকও হবেন বলে বিধানে উল্লেখ করা হয়।
জাতীয় পার্টির ফখরুল ইমাম, সেলিম উদ্দিন, শামীম হায়দার পাটোয়ারী, বেগম রওশন আরা মান্নান, বেগম নূর-ই-হাসনা লিলি চৌধুরী, নূরুল ইসলাম ওমর, ডা. আককাছ আলী সরকার, নূরুল ইসলাম মিলন, রুস্তম আলী ফরাজী ও বেগম মাহজাবীন মোরশেদ বিলের ওপর জনমত যাচাই, বাছাই কমিটিতে প্রেরণ ও সংশোধনী প্রস্তাব আনলে কয়েকটি সংশোধনী গ্রহণ করা হয়। বাকি প্রস্তাবগুলো কন্ঠভোটে নাকচ হয়ে যায়।

image_printPrint