প্রবাসী বাংলাদেশিদের সার্বিক কল্যাণে সরকার আন্তরিকভাবে কাজ করছে: নুরুল ইসলাম বিএসসি

ঢাকা, ২৮এপ্রিল, ২০১৮ (বাসস) : প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেছেন, প্রবাসী বাংলাদেশিদের সার্বিক কল্যাণে সরকার আন্তরিকভাবে কাজ করছে। যে কোন উপায় প্রবাসী বাংলাদেশিদের কল্যাণে সর্ব প্রকার সাহায্য সহযোগিতার জন্য সরকার প্রস্তুত রয়েছে।
আজ শনিবার ঢাকার একটি হোটেলে সেন্টার ফর নন-রেসিডেন্ট বাংলাদেশিস (এনআরবি) আয়োজিত ‘এসো গড়ি মাতৃভূমি’ শীর্ষক ওয়ার্ল্ড কনফারেন্সের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।
প্রবাসে বসবাসরত সকল বাংলাদেশিকে বৈধ পথে রেমিটেন্স পাঠানোর আহ্বান জানিয়ে নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেন, আসুন দেশ ও দেশের মানুষকে ভালবেসে সোনার বাংলা গড়ার অঙ্গিকারবদ্ধ হই।
তিনি বলেন, আপনাদের প্রেরিত রেমিটেন্স দিয়ে দেশে বিনিয়োগ করুন। বর্তমান সরকার প্রবাসী বাংলাদেশিদের বিনিয়োগে উৎসাহ প্রদান করছে। দেশে প্রবাসী বাংলাদেশিদের বিনিয়োগরে সৃষ্টিতে ব্যাপক কাজ হচ্ছে।
প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী বলেন, সরকারের লক্ষ্য হচ্ছে নিরাপদ, সুষ্ঠু ও নিয়মতান্ত্রিক অভিবাসন ব্যবস্থা তৈরি করা। যা প্রবাসী বাংলাদেশি অভিবাসীদের কল্যাণ ও অধিকার রক্ষা করবে। আমরা বিদেশে অবস্থানকারী প্রবাসীদের দেশে সংগঠিত হবার জন্য উৎসাহ প্রদান করছি।
এনআরবি চেয়ারম্যান এমএস শাকিল চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব সাবেক মন্ত্রী শেখ শহিদুল ইসলাম, সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা হোসেইন জিল্লুর রহমান, নির্বাচন কমিশন সচিব হেলাল উদ্দিন আহমেদ, বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর অবু হেনা রেজা হাসান এবং এফবিসিসিআই এর সভাপতি মো. সফিউল আলম (মহিউদ্দিন)।
পরে মন্ত্রী প্রবাসী বাংলাদেশিদের আয় দেশে আনতে ভূমিকা রাখার জন্য দশটি ব্যাংকে যথাক্রমে ইসলামী ব্যাংক, অগ্রণী ব্যাংক, সোনালী ব্যাংক, জনতা ব্যাংক, ডাচ বাংলা ব্যাংক, সাইথইষ্ট ব্যাংক, ন্যাশনাল ব্যাংক, পূবালী ব্যাংক, ব্যাংক এশিয়া এবং দি সিটি ব্যাংক পুরস্কার প্রদান করেন।
এছাড়াও দেশে রেমিটেন্স আনার জন্য ব্র্যান্ডি আওয়ার্ডে ব্র্যান্ডি করার জন্য সাতটি ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানকে যথাক্রমে ব্যাংক এশিয়া, প্রাইম ব্যাংক, এবি ব্যাংক, অগ্রণী ব্যাংক, পূবালী ব্যাংক, এক্সিম ব্যাংক এবং টিসিবিএল গ্রুপ পুরস্কার প্রদান করে।