দুর্বল হংকংকে হেসে-খেলে হারালো পাকিস্তান

229

দুবাই, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮ (বাসস) : বোলারদের নৈপুণ্যে এশিয়া কাপ ক্রিকেটের দ্বিতীয় ও ‘এ’ গ্রুপের প্রথম ম্যাচে দুর্বল হংকংকে ৮ উইকেটে হারিয়েছে পাকিস্তান। বাছাই পর্ব থেকে টুর্নামেন্টে খেলার সুযোগ পাওয়া হংকং টস জিতে প্রথমে ব্যাট করে ১১৬ রানে অলআউট হয়। জবাবে ১৫৮ বল হাতে রেখে জয় তুলে নেয় পাকিস্তান।
দুবাইয়ে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং বেছে নেয় হংকং। উদ্বোধনী জুটিতে ভালো শুরুর ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন হংকং-এর দুই ওপেনার নিজাকাত খান ও অধিনায়ক অংশুমান রাথ। ৪ ওভার পর্যন্ত উইকেটে টিকে ছিলেন তারা। কিন্তু পঞ্চম ওভারের তৃতীয় বলে উইকেট পতনের তালিকায় নাম তুলেন নিজাকাত। রান আউট হবার আগে ১৩ রান করেন তিনি।
নিজাকাতের বিদায়ের পর রান তোলার দায়িত্ব কাঁধে তুলে নেন রাথ। ৩টি বাউন্ডারিতে পাকিস্তানের বোলারদের ওপর চাপ সৃষ্টির চেষ্টা করেন তিনি। কিন্তু পেসার ফাহিম আশরাফের শিকার হয়ে ১৯ রানেই থেমে যেতে হয় তাকে।
৩২ রানে দুই ওপেনারের বিদায়ের পর হংকং-এর মিডল-অর্ডারের ব্যাটসম্যানরাও ব্যর্থতার পরিচয় দেন। বাবর হায়াত ৭, ক্রিস্টোফার কার্টার ২ ও এহসান খান শুন্য হাতে ফিরেন। বাবর ও এহসান শিকার হন লেগ-স্পিনার শাহদাব খানের এবং কার্টারকে আউট করেন পেসার হাসান আলী।
৪৪ রানে ৫ উইকেট হারানোয় খাদের কিনারায় পড়ে যায় হংকং। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলার চেষ্টা করেন কিঞ্চিত শাহ ও আইজাজ খান। ষষ্ঠ উইকেটে তাদের ৫৩ রানের সুবাদে শত রানের দোঁড়গোড়ায় পৌঁছে যায় হংকং। কিন্তু ৪৭ বলে ২৭ রান করা আইজাজকে তুলে নিয়ে এই জুটি ভাঙ্গেন উসমান খান।
এরপর হংকং-এর টেল-এন্ডারদের ছেটে ফেলতে খুব বেশি সময় নেয়নি পাকিস্তানের বোলাররা। শেষ পর্যন্ত ৩৭ দশমিক ১ ওভারে ১১৬ রানে গুটিয়ে যায় হংকং। আইজাজের পর দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৬ রান করেন শাহ। পাকিস্তানের উসমান ১৯ রানে ৩টি, হাসান-শাহদাব ২টি করে উইকেট নেন।
জয়ের জন্য ১১৭ রানের সহজ টার্গেটে খেলতে নেমে দেশে-শুনে শুরু করেন পাকিস্তানের দুই ওপেনার ফখর জামান ও ইমাম-উল হক। ৮ ওভারে ৪১ রানের জুটি গড়েন তারা। এহসান খানের বলে ব্যক্তিগত ২৪ রান করা জামান আউট হলে প্রথম উইকেট হারায় পাকিস্তান।
দলীয় ৪১ রানে জামানের বিদায়ের পর দলের জয়ের পথ সহজ করতে থাকেন ইমাম ও বাবর। হংকং-এর বোলারদের দেখে-শুনে খেলে জুটিতে অর্ধ শতক পূর্ণ করেন তারা। তবে জুটিতে ৫২ রানের বেশি যোগ করতে পারেননি তারা। এবার প্রথম উইকেট শিকারী এহসানের শিকার হন ৩৬ বলে ৩৩ রান করা বাবর।
বাবর যখন বিদায় নেন তখন জয় থেকে ২৪ রান দূরে দাড়িয়ে পাকিস্তান। এরপর দলের প্রয়োজন ২৪ রান সহজেই তুলে নেন ইমাম ও শোয়েব মালিক। ইমাম ৫০ ও মালিক ৯ রানে অপরাজিত থেকে দলের বড় জয় নিশ্চিত করেন। এহসান খান ২টি উইকেট নেন।
আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর চিরপ্রতিন্দ্বন্দি ভারতের বিপক্ষে গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচ খেলবে পাকিস্তান।
স্কোর কার্ড :
হংকং ইনিংস :
নিজাকাত খান রান আউট (শাহদাব খান) ১৩
অংশুমান রাথ ক সরফরাজ ব ফাহিম ১৯
বাবর হায়াত স্টাম্প সরফরাজ ব শাহদাব ৭
ক্রিস্টোফার কার্টার ক ইমাম ব হাসান ২
কিঞ্চিত শাহ ক শাহদাব ব হাসান ২৬
এহসান খান এলবিডব্লু ব শাহদাব ০
আইজাজ খান বোল্ড ব উসমান ২৭
স্কট ম্যাককেচিন এলবিডব্ল্ ুব উসমান ০
তানবির আফজাল বোল্ড ব উসমান ০
এহসান নওয়াজ রান আউট (নাওয়াজ/হাসান/সরফরাজ) ৯
নাদিম আহমেদ অপরাজিত ৯
অতিরিক্ত (ও-৪) ৪
মোট (অলআউট, ৩৭.১ ওভার) ১১৬
উইকেট পতন : ১/১৭ (নিজাকাত খান), ২/৩২ (রাথ), ৩/৩৯ (কার্টার), ৪/৩৯ (কার্টার), ৫/৪৪ (এহসান), ৬/৯৭ (আইজাজ), ৭/৯৭ (ম্যাককেচিন), ৮/৯৭ (আফজাল), ৯/৯৯ (শাহ), ১০/১১৬ (নাওয়াজ)।
পাকিস্তান বোলিং :
আমির : ৭-১-২০-০,
উসমান : ৭.৩-১-১৯-৩ (ও-১),
ফাহিম : ৪-০-১০-১ (ও-১),
হাসান : ৭.১-০-১৯-২,
শাহদাব : ৮-১-৩১-২ (ও-১),
মালিক : ৩-০-১৭-০ (ও-১),
ফখর : ০.৩-০-০-০।
পাকিস্তান ইনিংস :
ফখর জামান ক ম্যাককেচিন ব এহসান খান ২৪
ইমাম উল হক অপরাজিত ৫০
বাবর আজম ক ম্যাককেচিন ব এহসান খান ৩৩
শোয়েব মালিক অপরাজিত ৯
অতিরিক্ত (নো-১, ও-৩) ৪
মোট (২ উইকেট ২৩.৪ ওভার) ১২০
উইকেট পতন : ১/৪১ (জামান), ২/৯৩ (বাবর)।
হংকং বোলিং :
তানবির : ৪-২-১৩-০ (ও-১),
এহসান নাওয়াজ : ৪-০-২৭-০ (ও-১, নো-১),
আইজাজ : ৩.৪-০-১৯-০,
এহসান খান : ৮-০-৩৪-২ (ও-১),
নাদিম : ৪-০-২৭-০।
ফল : পাকিস্তান ৮ উইকেটে জয়ী।
ম্যাচ সেরা : উসমান খান-(পাকিস্তান)।

image_printPrint