বঙ্গবন্ধু শান্তি পদক পেলেন সৈয়দ হাসান ইমাম

ঢাকা, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮ (বাসস) : জুলিও ক্যুরি বঙ্গবন্ধু শান্তি সংসদ প্রবর্তিত চলতি বছরের ‘বঙ্গবন্ধু শান্তি পদক’ পেয়েছেন বিশিষ্ট অভিনেতা, মুক্তিযোদ্ধা ও ঘাতক-দালাল-নির্মূল কমিটির সাবেক সভাপতি সৈয়দ হাসান ইমাম। আজ আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে এই পদক প্রদান করা হয়েছে।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশক সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বাংলাদেশে যে আজ শান্তি ও অগ্রগতির ধারা বয়ে চলেছে একে অব্যাহত রাখতে আগামী নির্বাচনে জাতির পিতা, বঙ্গবন্ধুর কন্যা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আবারো আওয়ামী লীগকে বিজয়ী করে ক্ষমতায় আনতে হবে। তা না হলে দেশে আবারো অশান্তি ফিরে আসবে। দেশের অগ্রগতি থেমে যাবে।
পদকপ্রাপ্তির জবাবে সৈয়দ হাসান ইমাম বলেন, দশ বছর বয়স থেকে বঙ্গবন্ধুর স্নেহ পেয়েছি। আমার কাঁধে বঙ্গবন্ধুর হাতের ছোঁয়া রয়েছে। তাঁর নামে যে পদক, সে পদক পেয়ে আমি খুই আনন্দিত। তাঁর হত্যার বিচার হয়েছে। পালিয়ে থাকা খুনিদের এনে শাস্তি কার্যকর হলে আরো শান্তি পাবো।
আজ সন্ধ্যায় ঢাকার বিজয়নগরে হোটলে ৭১-এ জুলিও ক্যুরি বঙ্গবন্ধু শান্তি পরিষদ আয়োজিত অনুষ্ঠানে সৈয়দ হাসান ইমামের হাতে পদকের ক্রেস্ট তুলে দেন আওয়ামী লীগের তথ্য ও প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ এমপি।
এতে সভাপতিত্ব করেন জুলিও ক্যুরি বঙ্গবন্ধু শান্তি পরিষদের সভাপতি প্রকৌশলী মো. কবির আহমেদ ভুঁয়া। আরো বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ শান্তি পরিষদের সভাপতি ও আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য মোজাফফর হোসেন পল্টু, আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য এভভোকেট সৈয়দ রেজাউর রহমান, লেখক মোনায়েম সরকার, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আবদুল আউয়াল ভুঁয়া প্রমুখ।
ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বাংলাদেশ আজ আর্থ-সামাজিক, রাজনীতিতেও বদলে যাচ্ছে। একটি দল জ্বালাও-পোড়াও করে, মানুষ হত্যা করে স্বাধীনতাবিরোধী শক্তিকে নিয়ে আবার ক্ষমতায় আসতে চায়। এদের বিরুদ্ধে তিনি দেশবাসীকে সজাগ থাকার আহ্বান জানান।
মোজাফফর হোসেন পল্টু বলেন, ১৯৭৩ সালে বিশ্ব শান্তি পরিষদ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুকে জুলিও ক্যুরি পদক প্রদান করেছিল বঙ্গবন্ধুর অবদানের জন্যই। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু এই পদকের মর্যাদা দেশবাসীকে ও মুক্তিযুদ্ধে জীবন দেয়া ত্রিশ লাখ শহীদদের প্রতি উৎসর্গ করেছিলেন।