রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে ভারত পূর্ণ সহযোগিতা দিবে : গোখলে

42
image_printPrint

ঢাকা, ৯ এপ্রিল, ২০১৮ (বাসস) : ভারতের পররাষ্ট্র সচিব বিজয় কেশভ গোখলে আজ বলেছেন, নয়া দিল্লি রোহিঙ্গা সংকট নিরসনের যে কোনো প্রষ্টোয় বাংলাদেশকে পূর্ণাঙ্গ সহযোগিতা প্রদান করবে। রাখাইন রাজ্য থেকে বাস্তুচ্যুত হয়ে আসা লাখ লাখ মানুষকে মানবিক সহায়তাদানে বাংলাদেশের দৃষ্টিভঙ্গিকে তার দেশ খুবই প্রশংসনীয় কাজ হিসেবে মূল্যায়ন করে। তিনি ষষ্ঠ সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর শেষে এক লিখিত বিবৃতিতে জানিয়েছেন, রোহিঙ্গাদের আশু প্রত্যাবাসনসহ এ সংকট নিরসনে বাংলাদেশের যে কোনো প্রচেষ্টাকে ভারত পূর্ণাঙ্গ সমর্থন দিয়ে যাবে।
গোখলে বলেন, ভারতের পক্ষ থেকে গত বছর সেপ্টেম্বর মাসে ৩ লাখ রোহিঙ্গার জন্যে মানবীয় সাহায্য পাঠানো হয়েছে। সেই সময়ে পুনরায় দ্বিতীয় দফায় সহযোগিতারও আশ্বাস দেয়া হয়।
তিনি বলেন, ওই সহায়তায় নারী ও শিশু স্বাস্থ্য সেবায় ভ্রাম্যমান হাসপাতালসহ সকল প্রকার সুবিধা থাকবে। দ্বিতীয় পরিকল্পনায় থাকবে গুড়া দুধসহ অন্যান্য শিশু খাদ্য, শুটকি মাছ, রান্নার চুল্লি, জ্বালানি, রেইন কোট, গাম বুট ইত্যাদি মানবিক সাহায্য সামগ্রী।
গোখলে বলেন, বাংলাদেশ সরকারের আসন্ন বর্ষাকালীন জটিল পরিস্থিতি পরিকল্পনার কথা ভেবেই এসব প্রয়োজনীয় সামগ্রী পাঠানো হবে। তিনি বলেন, অন্যদিকে ‘মিয়ানমারের দিক থেকে, আমরা রাখাইন রাজ্য উন্নয়নে আমাদের পরিকল্পনার আওতায় তাদের ফিরে আসার প্রয়োজনে ঘরবাড়ি নির্মাণসহ আর্থ-সামাজিক সহযোগিতা প্রদান করে যাচ্ছি।’
ভারতের পররাষ্ট্র সচিব গোখলে এর আগে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় পররাষ্ট্র সচিব এম শহিদুল হকের সঙ্গে এক আলোচনায় মিলিত হন। সেখানে ছয়টি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়।
আলোচনার পর, হক বলেন, রোহিঙ্গা ইস্যুসহ অন্যান্য সব ধরণের বিষয়ে আলোচিত হয়েছে। তিনি বলেন, ‘আমরা আনন্দিত যে, রোহিঙ্গা সঙ্কট নিয়ে ভারত একটি শান্তিপূর্ণ সমাধান চায় এবং এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় সহযোগিতা দিতে আগ্রহী।’
তিনি আরো জানান, তিস্তার পানি বণ্টন ইস্যু নিয়ে আলোচনাকালে ভারত পুনরায় অতি শিগগির পানি-বন্টন চুক্তি স্বাক্ষরের প্রতিশ্রুতি পুনর্ব্যক্ত করেছে।