শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে নৈতিকতার ওপর ক্লাস নেয়া প্রয়োজন : তথ্যমন্ত্রী

172

চট্টগ্রাম, ২৬ অক্টোবর, ২০১৯ (বাসস) : তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষার পাশাপাশি দেশাত্ববোধ, মূল্যবোধ ও মমত্ববোধে জাগ্রত করার ওপর গুরুত্বারোপ করে বলেছেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে নৈতিকতার ওপর ক্লাস নেয়া প্রয়োজন।
তিনি বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের মাঝে জোরালো প্রচেষ্টা থাকলে স্বপ্নকেও ছাড়িয়ে যাওয়া সম্ভব। শিক্ষার্থীদের স্বপ্ন বাস্তবায়নের প্রতিজ্ঞা করতে হবে। লেখাপড়ার পাশাপাশি দেশাত্ববোধে জাগ্রত, মেধা বিকাশ ও মূল্যবোধের বিকাশ ঘটাতে হবে।’
মন্ত্রী আজ চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া আদর্শ বহুমুখী পাইলট উচ্চ বিদ্য্যলয়ের বার্ষিক পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদ সভাপতি অধক্ষ্য সুমঙ্গল মুৎসুদ্দীর সভাপতিত্বে ও সহকারী প্রধান শিক্ষক আবু সায়েমের পরিচালনায় অনুষ্টানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মাসুদুর রহমান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এম মিজানুর রহমান। প্রধান অতিথিকে বিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে মানপত্র তুলে দেন শিক্ষক প্রতিনিধি রহিম উদ্দিন সিকদার।
স্কুলের উদ্দেশে হাছান মাহমুদ বলেন, জিপিএ ৫ না পাওয়ার ব্যর্থতায় হতাশ হলে চলবেনা। ব্যর্থ হলে হতাশা নয়, যেখানে ব্যর্থতা সেখান থেকেই আবারো প্রচেষ্টা শুরু করতে হবে। জীবনের সবচেয়ে মূল্যবান হচ্ছে সময়। সময় বয়ে গেলে আর ফেরত আসেনা। ছাত্রজীবন শ্রেষ্ঠ সময়। এই সময়টাতে স্বপ্নের বীজ বপন করতে হয়।
পরিবেশ রক্ষা ও পরিচ্ছন্নতার ওপর শিক্ষার্থীদের বেশি করে সচেতনতা বাড়ানোর ওপর গুরুত্বারোপ করে তিনি আরো বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে এসব বিষয়সহ শিক্ষার্থীদের জন্য বার্ষিক পুরস্কার বিতরণীতে ক্রীড়ার পাশাপাশি পারিবারিক ও সামাজিক মূল্যবোধ, নৈতিকতা, মানবিক আচরণের জন্য পুরস্কার চালু করা দরকার।
তথ্যমন্ত্রী বলেন, মানুষ যান্ত্রিক ও আত্মকেন্দ্রিক হয়ে যাচ্ছে। সামাজিক অবক্ষয় চলছে। সমাজকে রক্ষা করতে হবে। স্কুলে লেখাপড়ার মান উন্নত করতে হবে। শুধু লেখাপড়া নয় শিক্ষার্থীদের পারিবারিক মূল্যবোধ শেখানো দরকার। যান্ত্রিকতার কারণে আমাদের পারিবারিক ও নৈতিক মূল্যবোধ হুমকির মুখে।
আলোচনা সভা শেষে তথ্যমন্ত্রী স্কুলের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পুরস্কার বিতরণ ও মিড ডে মিলে’র উদ্বোধন করেন।

image_printPrint