পেরুর বিশেষায়িত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মডেল অনুসরণ করতে সায়মা ওয়াজেদের আহ্বান

212

ঢাকা, ১৯ জুলাই, ২০১৯ (বাসস) : পেরুর বিশেষায়িত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ‘সেন্ট্রু এ্যান সুলিভান ডেল পেরু (সিএএসপি)’র মডেলটি পর্যায়ক্রমে বাংলাদেশের সকল বিশেষায়িত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে সূচনা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপার্সন সায়মা ওয়াজেদ হোসেন উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন।
তিনি পেরুর মডেল বাস্তবায়নের জন্য বিশেষায়িত প্রতিষ্ঠান কেন্দ্রীয় প্রয়াসকে সহযোগী প্রতিষ্ঠান হিসেবে নির্বাচন করেন।
সিএএসপি’র দুই জন উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তা ড. লিলিয়ানা মেও এবং মিস ইয়ামি ওয়েমা প্রয়াসের সব স্টাফ ও অভিভাবককে কর্মশালার মাধ্যমে প্রশিক্ষণ দেন। এই প্রশিক্ষণ কর্মশালা মঙ্গলবার সকালে শুরু হয়েছে, যা আগামীকাল পর্যন্ত চলবে।
সিএএসপি’র কর্মকর্তারা মঙ্গলবার সকালে প্রয়াস-এর ক্লাসরুম পরিদর্শনের সময় শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সঙ্গে আলোচনা করে প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সম্পর্কে সম্যক ধারণা দেন।
পরে প্রয়াস কনফারেন্স রুমে এক সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়। এই সভায় উপস্থিত ছিলেন সূচনা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপার্সন সায়মা ওয়াজেদ হোসেন, প্রয়াসের ভাইস প্যাট্রোন, প্রয়াস পরিচালনা পর্ষদ এবং অন্যান্য সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তাগণ।
‘পরিবারের ক্ষমতায়ন’ শীর্ষক কর্মশালায় প্রয়াসের সব কর্মকর্তা, কর্মচারীকে সম্পৃক্ত করে গত বুধবার সকাল ৮টায় শুরু হয়ে আড়াইটা পর্যন্ত চলে। কর্মশালার শিক্ষণীয় বিষয় ছিল-‘ট্রিট মি এস এনি আদার পার্সন’ (আমাকে অন্য সকলের মত দেখ)।
এদিন সন্ধ্যায় পেরু থেকে আসা সিএএসপি’র কর্মকর্তাবৃন্দের সম্মানে সায়মা ওয়াজেদ হোসেন এক নৈশভোজের আয়োজন করেন।
সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ, সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম, প্রধানমন্ত্রীর আন্তর্জাতিক বিষয়ক উপদেষ্টা ড. গওহর রিজভী ও ভুটানের রাষ্ট্রদূতসহ উচ্চপদস্থ সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তাগণ এসময় উপস্থিত ছিলেন।
নৈশভোজে সূচনা ফাউন্ডেশনের চেয়ারপার্সন পেরু থেকে আসা অতিথিদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন এবং সিএএসপি মডেল বাস্তবায়নের জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে এটি সম্পর্কে অবহিত করেন।

image_printPrint